Holi Party Hangover: হোলি পার্টির পর হ্যাংওভার খুবই সাধারণ, ঘরোয়া উপায়ে হতে পারেন দ্রুত সুস্থ, জেনে নিন বিস্তারিত...
Credit: Facebook

উৎসব মানেই ভরপুর আনন্দ সঙ্গে বিভিন্ন ধরনের খাবার ও পানীয়। রঙের উৎসব হোলির বিশেষ ঐতিহ্য বাড়িতে তৈরি ভাং‌, যা হোলির মজাকে আরও কয়েকগুণ বাড়িয়ে তোলে। তবে বেশি আনন্দের দরুন অতিরিক্ত মদ্যপানের ফলে পরের দিন হয় হ্যাংওভার, যার ফলে অতিরিক্ত ক্লান্তি ও মাথাব্যথার মতো সমস্যা দেখা দেয়। তবে ঘরোয়া উপায়ে এর প্রতিকার করা সম্ভব। এর ফলে সহজেই হ্যাংওভার থেকে মুক্তি পাওয়া যেতে পারে।

  • প্রথমত, এই সময় শরীরকে হাইড্রেটেড রাখা খুবই জরুরি। হ্যাংওভারের সময় শরীরে জলের অভাব হয়, তাই প্রচুর পরিমাণে জল পান করা উচিত। নারকেল জল এবং ফলের রসও শরীরকে দ্রুত ঠিক করতে সাহায্য করে।
  • শরীর থেকে টক্সিন দূর করতে সহায়ক ভূমিকা পালন করে লেবু জল। এক গ্লাস উষ্ণ গরম জলে লেবুর রস ও সামান্য মধু মিশিয়ে পান করলে সহজেই হ্যাংওভার থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।
  • হ্যাংওভার থেকে মুক্তি পেতে সাহায্য করে মধু ও দারুচিনির জল। এক গ্লাস উষ্ণ গরম জলে সামান্য মধু এবং এক চিমটি দারুচিনির গুঁড়ো মিশিয়ে পান করলে শরীরে এনার্জি বৃদ্ধি পায়। এছাড়া শরীর থেকে টক্সিন দূর করতে সাহায্য করে এই পানীয়।
  • বমি বমি ভাব এবং পেট ব্যথা হলে আদা চা উপকারী। এক টুকরো আদা জলে ফুটিয়ে তাতে সামান্য চিনি বা মধু মিশিয়ে পান করলে হজমশক্তি উন্নত হয় এবং শরীরকে শিথিল রাখতে সাহায্য করে।
  • হ্যাংওভারের সময় শরীরের সবথেকে বেশি প্রয়োজন হয় শক্তি। তাই এই সময় প্রোটিন জাতীয় খাবার, যেমন- ডিম, দই, এই জাতীয় খাবার খাওয়া উচিত। এগুলো শরীরকে দ্রুত সুস্থ করতে সাহায্য করে।