Covaxin: অক্টোবরেই কোভাক্সিন-র ছাড়পত্রের বিষয়ে সিদ্ধান্ত, জানাল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা
ছবি ট্যুইটার

জেনেভা, ৩০ সেপ্টেম্বর: ভারতের তৈরি করোনাভাইরাসের (COVID-19) টিকা কোভ্যাক্সিন-র জরুরি ব্যবহারে অনুমোদনের বিষয়ে সিদ্ধান্ত এই মাসেই নেওয়া হবে বলে জানাল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। কোভ্যাক্সিন তৈরি করেছে হায়দরাবাদের ভারত বায়োটেক। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানিয়েছে, কোভাক্সিনের মূল্যায়ন চলছে। চলতি বছরের ১৯ এপ্রিল ভারত বায়োটেক কোভ্যাক্সিনের অনুমোদন চেয়ে আবেদন জমা দিয়েছিল। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ওয়েবসাইট বলছে, ২২ অক্টোবর এই বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

ডব্লিউএইচও বলেছে যে এটি ৬ জুলাই থেকে ভারত বায়োটেকের পাঠানো নথি মূল্যায়ন করা শুরু করেছে। সংস্থাটির মতে, তাদের কাছে জমা দেওয়া নথি গোপনীয়। যদি মূল্যায়নের জন্য জমা দেওয়া কোনও পণ্য তালিকাভুক্তির মানদণ্ড পূরণ করে, তাহলে তার ফলাফল প্রকাশ করবে। সংস্থাটি আরও জানিয়ছে যে জরুরি ব্যবহারের তালিকায় কোনও পণ্যকে ঢোকানোর প্রক্রিয়া প্রস্তুতকারকের জমা দেওয়া তথ্যের গুণমান এবং মানদণ্ড পূরণকারী তথ্যের উপর নির্ভর করে। আরও পড়ুন: Karnataka: সন্তানকে বুকের দুধ খাওয়ানো একজন মায়ের অবিচ্ছেদ্য সাংবিধানিক অধিকার, পর্যবেক্ষণ কর্নাটক হাইকোর্টের

ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অফ মেডিক্যাল রিসার্চ ও ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ ভাইরোলজির সহযোগিতায় কোভ্যাক্সিন তৈরি করেছে হায়দরাবাদের ভারত বায়োটেক। তৃতীয় পর্যায়ের ট্রায়ালে এই টিকা ৭৭.৮ শতাংশ কার্যকারিতা দেখিয়েছে। এছাড়াও অতিমাত্রায় উপসর্গ রয়েছে এমন রোগীদের ক্ষেত্রে এটা ৯৩.৪ শতাংশ কার্যকরী। ডেল্টা রূপের বিরুদ্ধে কোভ্যাক্সিন ৬৫.২ শতাংশ কার্যকরী। ভারত বায়োটেক সম্প্রতি বলেছে যে তারা কোভাক্সিন সম্পর্কিত সমস্ত ডেটা জমা দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার কাছে। বিশ্বব্যাপী স্বাস্থ্য পর্যবেক্ষকের কাছ থেকে এবার মতামতের অপেক্ষায় রয়েছে তারা।