Drinking Water for Healthy Brain: সুস্থ মস্তিষ্কের জন্য কতটা জল পান করা উচিত শিশুদের? জেনে নিন সুস্থ মস্তিষ্কের জন্য জলের গুরুত্ব...
Credits: Pixabay

ছোট থেকেই আমরা শুনে আসছি জলই জীবন। ছোট থেকে বড় সবার সুস্থ থাকার জন্য জল খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তবে আপনি কি জানেন শিশুদের দিনে কতটা জল পান করা উচিত? সাধারণত আবহাওয়া এবং শারীরিক কার্যকলাপের উপর নির্ভর করে শিশুদের শরীরের জন্য কতটা তরল প্রয়োজন। তবে ৪-৮ বছর বয়সী শিশুদের প্রতিদিন প্রায় ১.২ লিটার জল পান করা উচিত। ৯-১৩ বছর বয়সী ছেলেদের জল পান করা উচিত ১.৬ লিটার এবং ৯-১৩ বছর বয়সী মেয়েদের জল পান করা উচিত ১.৪ লিটার। ১৪ বছর বয়স থেকে ছেলেদের জল পান করা উচিত ১.৯ লিটার এবং ১৪ বছর বয়স থেকে মেয়েদের ১.৬ লিটার জল পান করা উচিত।

অস্ট্রেলিয়ান খাদ্যতালিকা সংক্রান্ত নির্দেশিকা অনুসারে, সাধারণত জল পান করা ভালো তবে শিশু যদি জল পান করতে পছন্দ না করে তবে জলের মধ্যে কয়েক ফোঁটা ফলের রস যোগ করা যেতে পারে। শিশু এবং কিশোর-কিশোরীদের কতটা সময় অন্তর জল পান করা উচিত সেই সম্পর্কে কোনও নির্দিষ্ট পরামর্শ দেওয়া না হলেও বিশেষজ্ঞদের মতে সকালে ঘুম থেকে ওঠার পর প্রথমে জল পান করা উচিত, এর ফলে শরীর ও মস্তিষ্ক সঠিকভাবে জল ব্যবহার করতে পারে এবং সারাদিন শরীর ও মস্তিষ্ককে ভালোভাবে কাজ করতে সাহায্য করে।

মস্তিষ্কের মোট ভরের প্রায় ৭৫ শতাংশ থাকে জল, তাই মস্তিষ্কের কাজ চালিয়ে যাওয়ার জন্য জল প্রয়োজনীয়। মস্তিষ্কের কোষ এবং টিস্যুগুলিতে হরমোনের মাত্রার ভারসাম্য রাখতে প্রয়োজন জল। এছাড়া মস্তিষ্কে সঠিক ভাবে রক্তপ্রবাহ এবং অক্সিজেনের পাশাপাশি ভিটামিন ও খনিজ সরবরাহ করতে সহায়তা করে এই জল। তাই শিক্ষার্থীরা পর্যাপ্ত পরিমাণে জল পান করলে তাদের একাগ্রতা বৃদ্ধি পায়। শিশুদের ঘুম থেকে ওঠার সময়, খাবারের সময়, স্কুলে পৌঁছানোর সময়, ক্লাসের শুরুতে বা শেষে এবং বাড়িতে ফিরে জল পান করা অভ্যাস তৈরি করতে হবে। সকলের নিয়মিত রুটিন মেনে জল পান করা উচিত। নিয়মিত রুটিন মেনে জল পান করলে মনোযোগ বৃদ্ধি পাওয়ার পাশাপাশি আবেগ এবং আচরণে পরিবর্তন দেখতে পাওয়া যাবে।