Union Budget 2019: পেট্রোল-ডিজেলে লিটারে ১ টাকার অতিরিক্ত কর চাপানো হল, সোনার ওপর শুল্ক বাড়ল
সংসদে বাজেট পেশের সময় কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন। (Photo Credits: ANI)

নয়া দিল্লি, ৫ জুন: Union Budget 2019- বেশ কয়েকটি জনমোহনী ঘোষণার পর কেন্দ্রীয় বাজেটে পেট্রোল-ডিজেলের ওপর অতিরিক্ত কর চাপানোর কথা জানালেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন। পেট্রোল-ডিজেলে লিটারে ১ টাকার অতিরিক্ত কর চাপানোয় দাম যে বাড়তে চলেছে সেটা তো নিশ্চিত। সোনা ওপর বাড়ানো হল শুল্ক। পাশাপাশি ১ টাকা, ২ টাকা, ৫টাকা, ১০টাকা ও ২০ টাকার কয়েন বাজারে আনা হচ্ছে দৃষ্টিহীনদের সুবিধার জন্য।

NRI-দের জন্য আধার কার্ড ইস্যু করার প্রস্তাব। আগে এই কার্ড পাওয়ার জন্য ১৮০ দিন অপেক্ষা করতে হত। সেটা এখন দ্রুত হয়ে যাবে। নগদে ব্যবসায়িক লেনদেন কমাতে ব্যাঙ্ক থেকে বছরে এক কোটি টাকার বেশি নগদ তুললে ২ শতাংশ লেভি ধার্য করা হবে।

যাঁদের প্যান কার্ড নেই, তাঁরা আয়কর জমা দেওয়ার জন্য আধার নম্বরও ব্যবহার করতে পারবেন। আরও পড়ুন-এবারের বাজেট অর্থমন্ত্রীর সেরা দশ ঘোষণা

রাষ্ট্রয়াত্ত ব্যাঙ্কগুলিকে ৭৩০০০ কোটি টাকা দেওয়া হবে। ২ কোটি পড়ুয়াকে কারিগরি প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। সরকারি ব্যাঙ্কগুলিকে ৭০ হাজার কোটি দেওয়া হবে, প্রধানমন্ত্রী গ্রামীন ডিজিটাল অভিযানের মাধ্যমে দেশের প্রতিটি পঞ্চায়েত ডিজিটাল আদানপ্রদানের সুযোগ দেওয়া হয়েছে। অনলাইন হোম লোন, ডোর টু ডোর পরিষেবায় জোর দেওয়া হবে। দেশের মানুষকে পরিশ্রুত পানীয় জল দেওয়ার প্রতি সরকার প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। এর জন্য নতুন মন্ত্রালয় গঠন করা হয়েছে। এই দফতরের কাজই হবে-হর ঘর জল সরবারহ করা। ২০২৪ সালের মধ্যে এই জলজীবন মিশনের কাজ শেষ করা হবে।

সরকারি ব্যাঙ্কগুলিকে ৭০ হাজার কোটি টাকা দেওয়া হবে। নন পারফর্মিং অ্যাসেট কমেছে ১ লক্ষ কোটি। তাঁদের জন্য পেটেন্ট এবং জিওগ্রাফিক ইন্ডিকেশন দেওয়া হবে। সৃজনশীল শিল্পী ও কারিগরদের জন্য বিশেষ প্রকল্প আনবে সরকার। স্বচ্ছ ভারত অভিযান দেশের মানুষের নজর কড়েছে। ৯.৬ কোটি টয়লেট তৈরি করা হয়েছে ২০১৪ সালের অক্টোবর থেকে। এবার থেকে স্চ্ছ ভারত অভিযান সলিড ম্যানেজমন্টও হবে।