Vande Bharat Express: দিল্লি-কাটরা বন্দে ভারত এক্সপ্রেসের আনুষ্ঠানিক যাত্রার সূচনা করলেন  স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ
বন্দে ভারত এক্সপ্রেসের সূচনা অমিত শাহের (Photo Credits: ANI)

নতুন দিল্লি, ৩ অক্টোবর: বৃহস্পতিবার দিল্লি থেকে জম্মু ও কাশ্মীরের কাটরা পর্যন্ত (Delhi-Katra Route) বন্দে ভারত এক্সপ্রেসের (Vande Bharat Express) সূচনা করলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ (Amit Shah) ও রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল (Piyush Goyal)। অনুষ্ঠানে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জিতেন্দ্র সিং এবং হর্ষ বর্ধনও উপস্থিত ছিলেন। ট্রেনটি আজ সকাল ন'টায় নতুন দিল্লি স্টেশন থেকে যাত্রা শুরু করেছে। ট্রেনটির সূচনা হওয়াতে আনন্দ প্রকাশ করেন অমিত শাহ। তিনি বলেন, গতি ও নীতি মাথায় রেখে লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের লক্ষ্যে কাজ করছে ভারতীয় রেল। বিখ্যাত হিন্দু তীর্থস্থান বৈষ্ণদেবী যাওয়ার পথে কাটরা শেষ স্টেশন।

দিল্লি-কাটরা বন্দে ভারত এক্সপ্রেসের প্রথম বাণিজ্যিক যাত্রা শুরু হবে ৪ অক্টোবর থেকে। এই এক্সপ্রেস ট্রেনটি দিল্লির থেকে কাটরা বা বৈষ্ণদেবী ৮ ঘণ্টায় পৌঁছে দেবে। আগে রাজধানী থেকে কাটরা পৌঁছোতে ১২-১৪ ঘণ্টা সময় লাগতো। জানা গেছে, মোট যাত্রায় বন্দে ভারত এক্সপ্রেস আম্বালা ক্যান্টনমেন্ট, লুধিয়ানা এবং জম্মু তাওয়াই স্টেশনে দুই মিনিট করে থামবে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দিল্লি-বারাণসী রুটে প্রথম বন্দে ভারত এক্সপ্রেসের সূচনা করেন। ইন্ডিয়ান রেলের সহায়ক সংস্থা আইআরসিটিসি (IRCTC) ইতিমধ্যে যাত্রীদের জন্য টিকিট বুকিংয়ের প্রক্রিয়া শুরু করেছে। চেয়ার কারে নতুন দিল্লি থেকে কাটরার যাতায়াতের ন্যূনতম ভাড়া ১,৬৩০ টাকা। এক্সিকিউটিভ চেয়ার কারের ভাড়া ২,৯৬৫ টাকা। আরও পড়ুন: Rajeev Kumar: অবশেষে প্রকাশ্যে রাজীব কুমার, আগাম জামিন প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ করতে কলকাতার প্রাক্তন পুলিশ কমিশনার হাজির আলিপুর আদালতে

মঙ্গলবার বাদে সপ্তাহের সব দিনই চলবে বন্দে ভারত এক্সপ্রেস। সকাল ৯টায় নতুন দিল্লি স্টেশন থেকে ছেড়ে দুপুর ২টোয় কাটরা পৌঁছে যাবে। একই দিনে ফিরবে ট্রেনটি। ওইদিনই বিকেল তিনটেয় কাটরা থেকে রওনা দিয়ে রাত ১১টায় রাজধানী পৌঁছোবে। যাত্রী স্বাচ্ছন্দের কথা মাথায় রেখে ট্রেনটিতে অনেক বিলাসবহুল ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। থাকছে CCTV, বায়ো ভ্যাকুয়াম টয়লেট, GPS ভিত্তিক তথ্য সিস্টেম এবং ওয়াই-ফাই। বন্দে ভারত এক্সপ্রেস সম্পূর্ণ শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ট্রেন, যাতে ১৬টি চেয়ারকার রয়েছে। সম্পূর্ণ দেশীয় প্রযুক্তিতে এই ট্রেনটি নির্মিত হয়েছে। এটি চেন্নাইয়ের ইন্টিগ্রাল কোচ ফ্যাক্টরি (ICF) ডিজ়াইন করেছে কেন্দ্রীয় সরকারের মেক ইন ইন্ডিয়া প্রকল্পে।