Tokyo Olympics 2020: মহিলাদের গল্ফে আফশোসের চতুর্থ স্থানে শেষ অদিতি অশোকের, পদক হাতছাড়া হলেও গল্ফকে জিতিয়ে দিলেন বেঙ্গালুরুর মেয়ে

টোকিও, ৭ অগাস্ট:  টোকিও অলিম্পিক (Tokyo Olympics 2020) একেবারে সুতোর ব্যবধানে মহিলাদের গল্ফের ব্যক্তিগত বিভাগে পদক পেল না ভারত। বেঙ্গারলুরুর মেয়ে অদিতি অশোক (Aditi Ashok) চার রাউন্ডের মধ্যে প্রথম তিন রাউন্ড ও চতুর্থ রাউন্ডে অনেকটা সময় প্রথম তিনের মধ্যে থেকেও, শেষের দিকে সামান্যের জন্য চতুর্থ স্থানে চলে যান। ফলে পদক এল না একটুর জন্য পেশাদার গল্ফে ২০০তম স্থানে থাকা অদিতি। সোনা জিতলেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নেলি কোর্দা। যিনি শুরু থেকেই প্রথম স্থানে ছিলেন। কোর্ডার মা শেষ করলেন সপ্তম স্থানে। আর অদিতিকে টপকে রুপো ও ব্রোঞ্জ জিতলেন যথাক্রমে জাপানের মোনে এনামি ও নিউ জিল্যান্ড লাদিয়া কো। মাত্র দুটো পয়েন্ট পিছিয়ে থাকায় পদক এল বনা অদিতির। গল্ফের প্রথম দুটি দিনে অদিতি দু নম্বরে ছিলেন। আজও একটা সময় অদিতির পদক নিশ্চিত দেখাচ্ছিলষ কিন্তু প্রবল বৃষ্টি এসে খেলা বন্ধ হওয়ার পর বদলে গেল খেলার ফল। মনোসংযোগে ব্যাঘাত ঘটল অদিতির। অনেকটা পিছন থেকে এসে কিউই খেলোয়াড় লাদিয়া কো ব্রোঞ্জ জিতে নিলেন।💔💔💔

গল্ফে নিয়ম হল, যে যত কম পয়েন্ট করে তারই জয় হয়। সেক্ষেত্রে সোনা জয়ী কোর্দা পান -১৭, রুপো জয়ী ইনামি -১৬, ব্রোঞ্জ জয়ী কো-১৬, চতুর্থ স্থানে থাকা অদিতি পান -১৫ পয়েন্ট। একেবারে অল্পের জন্য পদক হাতছাড়া হল বেঙ্গালুরুর ২৩ বছরের অদিতির। ২০১৬ রিও অলিম্পিকে সর্বকালের কনিষ্ঠতম গলফ প্রতিযোগী হিসাবে খেলতে নেমে তৈরি করেছেন রেকর্ড গড়েছিলেন অদিতি। সেই সময় অদিতির বয়স ছিল মাত্র ১৯ বছর।

গল্ফের মত খেলায় অলিম্পিকের মঞ্চে বিশ্বের সেরা খেলোয়াড়দের সঙ্গে একেবারে শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত লড়াই করে গেলেন ভারতীয় খেলোয়াড়। অভাবনীয় এক দৃশ্যের সাক্ষী থাকল দেশ। গোটা দেশ সকাল থেকে বসে থাকল গল্ফ দেখতে। যে খেলাটার নিয়ম, পয়েন্ট, স্কোর-জয় পরাজয় নিয়ে কোনও ধারনা না থাকলেও গল্ফ নিয়ে চলল মাতামাতি। শেষ অবধি অদিতি পদক না পেলেও ভারতে গল্ফকে নিয়ে এই উন্মাদনা আসলে এই খেলাটাকেই জিতিয়ে দিল। কখনও কেউ ভেবেছিল, একটা সময় মার্কিন ধনীদের শখের খেলা হিসেবে পরিচিত গল্ফকে নিয়ে ১৩৫ কোটির দেশ গুগলে সার্চ করবে 'গল্ফ পয়েন্ট সিস্টেম।'