Cyclone Asani: শক্তি হারিয়ে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত 'অশনি', আগামী ২৪ ঘণ্টায় দূর্বল হয়ে নিম্নচাপে পরিণত হবে
Cyclone Asani (Photo Credit: ANI/Twitter)

নতুন দিল্লি, ১১ মে: শক্তি খুইয়ে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হল 'অশনি' (Asani)। আগামী ২৪ ঘণ্টায় এটি নিম্নচাপে পরিণত হবে। ঘূর্ণিঝড় উপকূলের কাছে এলেও স্থলভাগে অশনি আছড়ে পড়বে না বলেই জানিয়েছে আবহাওয়া দফতর (India Meteorological Department)। তবে ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে অন্ধ্রপ্রদেশ (Andhra Pradesh)এবং ওড়িশার (Odisha) উপকূলবর্তী এলাকায় বৃষ্টি (Rain) হবে। উত্তাল থাকবে সমুদ্র। পশ্চিমবঙ্গের কয়েকটি জেলায় ভারী বৃষ্টিপাত ছাড়া তেমন কোনও প্রভাব পড়বে না।

আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগরের উপর সৃষ্টি প্রবল ঘূর্ণিঝড় 'অশনি’ গত ৬ ঘণ্টায় ১২ কিলোমিটার গতিবেগে পশ্চিম-উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হয়ে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়েছে। এটি আগামী কয়েক ঘণ্টা খুব সম্ভবত উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হয়ে অন্ধ্রপ্রদেশ উপকূলের কাছে পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগরে পৌঁছবে। তারপরে ধীরে ধীরে উত্তর-উত্তর-পূর্ব দিকে ফিরে আসার খুব সম্ভাবনা রয়েছে। এরপর মাছিলিপত্তনম, নরসাপুর, ইয়ানাম, কাকিনাদা, টুনি এবং বিশাখাপত্তনম উপকূল বরাবর অগ্রসর হবে। আজ সন্ধ্যা নাগাদ উত্তর অন্ধ্রপ্রদেশ উপকূলে পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগরে আসবে। এরপর এটিক উত্তর-পূর্ব দিকে উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরের দিকে অগ্রসর হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ১২ মে সকালের মধ্যে ধীরে ধীরে দুর্বল হয়ে নিম্নচাপে পরিণত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। আরও পড়ুন: Sri Lanka: সরকারি সম্পত্তি নষ্ট করলে, চলতে পারে গুলি, অগ্নিগর্ভ শ্রীলঙ্কায় নয়া ঘোষণা সেনা মুখপাত্রের

অশনির প্রভাবে অন্ধ্রপ্রদেশ ও ওড়িশা উপকূলের অধিকাংশ জায়গায় মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টিপাত হবে। কয়েকটি জায়গায় অতি ভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে। উপকূলবর্তী ওড়িশায় বিক্ষিপ্তভাবে ভারী বৃষ্টি হতে পারে। বাংলায় 'অশনি’র প্রভাব খুব একটা পড়বে না। তবে আজ, কাল ও পরশু ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে উপকূলবর্তী জেলাগুলিতে। মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টি হতে পারে, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনায়। পরিস্থিতি বিচার করে তৎপর জেলা প্রশাসন। বিভিন্ন এলাকায় মাইকে চলছে প্রচার। দিঘা ও মন্দারমণি বিচে কড়া নজরদারি পুলিশ ও বিপর্যয় মোকাবিলা দফতরের। কোনও পর্যটককে জলে নামতে দেওয়া হচ্ছে না।