President Ram Nath Kovind: মধ্যরাতে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের সইয়ের মাধ্যমে আইনে কার্যকর নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল
রামনাথ কোবিন্দ (Photo Credits: PTI)

নতুন দিল্লি, ১৩ ডিসেম্বর: বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলে (CAB) সই করে দিলেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ (President Ram Nath Kovind)। রাষ্ট্রপতির সইয়ের সঙ্গে সঙ্গেই আইনে কার্যকর করে দেওয়া হচ্ছে। নতুন আইনে প্রতিবেশী তিন দেশে অমুসলিম শরণার্থীদের নাগরিকত্ব দেওয়া হবে। সংশোধিত এই আইনে প্রতিবেশী বাংলাদেশ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান থেকে ধর্মীয নিপীড়ের শিকার হয়ে হিন্দু, শিখ, বৌদ্ধ, জৈন, পারসিক ও খ্রিস্টানরা ভারতে এসে থাকলে তাঁরা এ দেশের নাগরিকত্ব পাবেন। প্রবল বিরোধিতার মধ্যে থেকে সোমবার লোকসভায় মধ্যরাতে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল পাস হয়। পরে বুধবার তা পাস হয়ে যায় রাজ্যসভাতেও। ফেলে না রেখে তাতে সই করে দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি। সংসদে এই বিলের বিরুদ্ধে বিরোধীরা সরব হলেও তাঁদের সব আশঙ্কার জবাব দিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ (Amit Shah)।

প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেসের আনন্দ শর্মা তখন বলেন, “এত তাড়া কিসের? এই বিলটিকে সংসদীয় কমিটিতে পাঠানো উচিত। বিলটি এমন ভাবে পাস করানো হচ্ছে যেন মনে হচ্ছে দেশ বিশাল কোনও সমস্যায় পড়েছে। আমরা এই বিলের বিরোধিতা করছি। এই বিরোধিতার কারণ রাজনৈতিক নয়, এই বিরোধিতার কারণ নৈতিক ও সাংবিধানিক। এই বিল ভারতের সংবিধান ও গণতন্ত্রের উপরে আঘাত। এই বিল ভারতের আত্মার উপরে আঘাত, এই বিল নৈতিকতার পরীক্ষায় অকৃতকার্য হয়েছে।” তবে অমিত শাহ পাল্টা আক্রমণ করতে ছাড়েননি। বিল পেশ করার সময় তিনি বলেন, প্রতিবেশী পাকিস্তান ও অধুনা বাংলাদেশে ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের সংখ্যা কমেছে কুড়ি শতাংশ হারে। হয় তাঁরা মারা পড়েছেন নতুবা ভারতে পালিয়ে এসেছেন। তিনি আশ্বাস দেন, এ দেশের মুসলমানদের ভয় পাওয়ার কোনও কারণ নেই, তাঁরা এ দেশের নাগরিক ছিলেন এবং এ দেশের নাগরিক থাকবেন।  আরও পড়ুন-CAB Protest: নাগরিকত্ব বিলের বিরোধিতায় অশান্তির চরম সীমায় অসম, পুলিশের গুলিতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৫

কংগ্রেসের কপিল সিব্বল বলেন, যাঁদের এই দেশ সম্বন্ধে কোনও ধারনা নেই, তাঁরা এই দেশের ধারনাকে রক্ষা করতে পারবেন না। তিনি বলেন, “আমি জানি না স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ কোন ইতিহাস বই পড়েছেন। দ্বিজাতিতত্ত্ব আমাদের নয়, এই তত্ত্ব সাভারকরের তৈরি। কংগ্রেসের বিরুদ্ধে তিনি যে অভিযোগ এনেছেন তা প্রত্যাহারের জন্য আমি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে অনুরোধ করছি কারণ আমরা এক জাতিতে বিশ্বাসী এবং আপনারা নন।”