Kabul Evacuation: কাবুল থেকে উদ্ধারকাজ ইতিহাসের সবচেয়ে বড় ও কঠিন এয়ারলিফ্ট: জো বাইডেন
জো বাইডেন

ওয়াশিংটন, ২১ অগাস্ট: আফগানিস্তানের কাবুল (Kabul) থেকে আমেরিকানদের উদ্ধার ইতিহাসের ‘সবচেয়ে কঠিন’ কাজ বলে মনে করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন (Joe Biden)। তালিবানদের (Taliban) দখলে কাবুল চলে যাওয়ার পরই গোটা আফগানিস্তান জুড়ে চরম বিশৃঙ্খলা। এর মধ্যেই আমেরিকা ও অন্যান্য দেশের নাগরিকদের তালিবান অধিকৃত কাবুল থেকে উড়িয়ে নিয়ে যাওয়া খুবই বিপজ্জনক কাজ ছিল। শুক্রবার হোয়াইট হাউসে এক সাংবাদিক বৈঠকে বাইডেন বলেন, তালিবানি কবল থেকে বিমান উড়ানো ইতিহাসের সবচেয়ে বড় এবং কঠিন কাজ ছিল। আমি জানি না চূড়ান্ত ফলাফল কী হবে। আমি এর জন্য কোনও প্রতিশ্রুতি দিতে পারব না। তবে কাউকের আমরা ফেলে রেখে আসব না।

হোয়াইট হাউস সূত্রের খবর, গত এক সপ্তাহে মার্কিন সেনাবাহিনী অন্তত ১৩ হাজার মানুষকে বিমানে করে নিয়ে আসতে পেরেছে। এখনও বিমানে করে নিয়ে আসার কাজ চলছে। তবে বাইডেন প্রশাসন জানে না এখনও কত মানুষ আফগানিস্তানে আটকে পড়েছেন। কারণ, গত ২০ বছর ধরে প্রচুর মানুষ সেখানে কাজ করেছেন। আরও পড়ুন: Evacuation Mission From Kabul: আফগানিস্তানে এখনও পড়ে বহু ভারতীয়, উদ্ধারে যাওয়ার জন্য প্রস্তুত বায়ুসেনার সি-১৭ বিমান

তবে, এদিন বাইডেন আশ্বাস দিয়ে বলেন, "একটা বিষয় পরিষ্কার, যে সমস্ত আমেরিকানরা দেশে ফিরতে চাইবেন, আমরা তাঁদেরকে যে কোনও মূল্যে দেশে ফেরত আনব। যে সমস্ত আফগান মার্কিন বাহিনীর সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে লড়াই করেছেন, তাঁদেরও মার্কিন প্রশাসন ফিরিয়ে আনবে। যারা এই মুহূর্তে তালিবানি আতঙ্কে রয়েছেন।"

প্রসঙ্গত, দীর্ঘ ২০ বছর মার্কিন বাহিনী আফগানিস্তানে থাকলেও মাত্র কিছুদিনের প্রচেষ্টায় গোটা দেশ তালিবানিদের দখলে চলে আসে। এই ঘটনা মার্কিন বাহিনীর সামরিক পরাজয় বলে মনে করে গোটা বিশ্ব। যেখানে মার্কিন প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত আফগান সেনারা প্রায় বিনা লড়াইয়ে হার স্বীকার করে নেয়। যা ওয়াশিংটনের বিশ্বাসযোগ্যতাকে আঘাত করেছে। যদিও এই ধারণাকে প্রত্যাখান করেছেন বাইডেন। তিনি বলেন, আমরা আমাদের মিত্রদের কাছ থেকে বিশ্বাসযোগ্যতা নিয়ে কোনও প্রশ্ন আসেনি।