Kolkata: স্কুল শিক্ষকদের বদলি এবার অনলাইনে, জানালেন শিক্ষামন্ত্রী
(Photo Credits: PTI)

কলকাতা, ৭ অক্টোবর: স্কুল শিক্ষকদের বদলির প্রক্রিয়া (Teachers transfer process) এবার অনলাইনের মাধ্যমে হবে। জানালেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় (Partha chatterjee)। তিনি জানিয়েছেন, প্রাথমিক, মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের শিক্ষকদের বদলির জন্য আর স্কুলের এনওসি লাগবে না। মিউচুয়্যাল বদলির ক্ষেত্রে দিতে হবে না ইন্টারভিউ। আবেদনের নামে নেওয়া যাবে না কোনও টাকা। আজ শিক্ষকদের মিউচুয়াল ট্রান্সফারের একটি পোর্টাল উদ্বোধন করেন শিক্ষামন্ত্রী। আজই চালু হচ্ছে মিউচুয়াল বদলির পোর্টাল। শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় অবস্থান স্পষ্ট করে ঘোষণা করেছেন " মিউচুয়াল ট্রান্সফারে অফিস বদলির জন্য শিক্ষক-শিক্ষিকাদের কোন শুনানি বা হাজিরা দিতে হবে না। পুরো প্রক্রিয়াটিই অনলাইনে হবে।"

নিউজ ১৮ বাংলার খবর অনুযায়ী, মিউচুয়াল ট্রান্সফারের জন্য অনলাইন পোর্টাল চালু করার পাশাপাশি শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় আধিকারিকদের নির্দেশ দিয়েছেন এতদিন পর্যন্ত যে সমস্ত মিউচুয়াল ট্রান্সফারে আবেদনপত্র পড়ে রয়েছে সেগুলি ৭ দিনের মধ্যে নিষ্পত্তি করতে হবে। নিষ্পত্তি করার পাশাপাশি স্টেটাস রিপোর্ট শিক্ষামন্ত্রীকে পাঠাতে হবে বলে স্কুল শিক্ষা দপ্তরের আধিকারিকদের নির্দেশ দিয়েছেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়। শুধু তাই নয় এবার থেকে শিক্ষক-শিক্ষিকাদের বদলির জন্য কর্মরত স্কুল থেকে কোনরকম নো অবজেকশন সার্টিফিকেট দিতে হবে না বলেও জানিয়ে দিয়েছেন। এ প্রসঙ্গে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন " অভিযোগ আসছে বেশ কিছু স্কুল নো অবজেকশন সার্টিফিকেট শিক্ষক-শিক্ষিকাদের দিচ্ছে না। এবার থেকে স্কুলের বদলির আবেদনের জন্য নো অবজেকশন সার্টিফিকেট লাগবে না। স্কুল বিদ্যালয় পরিদর্শকদেরও সেটা জানিয়ে দিতে চাই।" আরও পড়ুন: Kolkata: জীবাণুমুক্ত করার জন্য আগামীকাল ও পরশু বন্ধ থাকছে নবান্ন

বুধবার শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় আরো জানান " মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা মাফিক বাড়ির কাছাকাছি শিক্ষক-শিক্ষিকাদের বদলির প্রক্রিয়াও শুরু করেছে রাজ্য স্কুল শিক্ষা দপ্তর। প্রাথমিক মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের শিক্ষকদের তাদের নিজেদের বাড়ির জেলা বা পার্শ্ববর্তী জেলাতে বদলি করা হবে।৬০০০ প্রাথমিক শিক্ষককে ইতিমধ্যেই বাড়ির কাছাকাছি বদলির জন্য অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।"