Afghanistan: মার্কিন বাহিনী নেই, তালিবানের ভয়ে সন্ত্রস্ত্র আফগানরা ছুটছেন সীমান্তের দিকে
Afghans (Photo Credit: Twitter)

কাবুল, ১ সেপ্টেম্বর: কাবুল (Kabul) থেকে শেষ মার্কিন বিমান উড়ে যায় ৩১ অগাস্ট। কাবুল থেকে শেষ মার্কিন বিমান ওড়ার পর আফগানরা হাপিত্যেশ করে বসে রয়েছেন সীমান্তের দিকে তাকিয়ে। পাকিস্তান (Pakistan) কিংবা ইরান (Iran) সীমান্ত খোলা হলে, তাঁরা প্রতিবেশী দেশগুলিতে প্রবেশ করতে পারেন। এই আশা নিয়েই আশায় বসে রয়েছেন আফগানরা।

সংবাদ সংস্থা রয়টার্সের খবর অনুসারে, মার্কিন বিমান (US) আফগানিস্তান (Pakistan) ছাড়ার পর বহু মানুষ পাকিস্তানের তরখাম সীমান্তে অপেক্ষা করছেন অনেকে আবার ইরানের ইসলাম কালা সীমান্তে অপেক্ষা করে বসে রয়েছেন। পাকিস্তানের খাইবার পাস দিয়েও অনেক আফগান নাগরিক প্রতিবেশী দেশে প্রবেশ করতে চাইছেন বলে জানান পাক সেনার এক আধিকারিক। সবকিছু মিলিয়ে আফগানিস্তান থেকে আমেরিকান সেনা যাওয়ার পর থেকে আরও শোচনীয় অবস্থায় আফগানরা।

আরও পড়ুন: Taliban: তালিবান কি জঙ্গি নয়? তালিব নেতার সঙ্গে দোহার বৈঠক নিয়ে প্রশ্নের মুখে মোদী সরকার

এদিকে মার্কিন সেনা (US Troops) যাওয়ার পর তালিবান যখন স্বাধীনতা দিবস উদযাপন করছে, সেই সময় শহরের ব্যাঙ্কগুলির সামনে দেখা যায় উপচে পড়া ভিড়। এমনকী, ব্য়াঙ্কের সামনে মহিলারা লাইন দিলে, সেখান একজনকে মারধরও করে তালিবান। প্রত্যক্ষদর্শীদের বয়ান অনুযায়ী, ব্যাঙ্কের সামনে লাইন দিলে, এক মহিলাকে মারধর শুরু করে তালিবান। যে খবর প্রকাশ্যে আসতেই ফের ভীত, সন্তস্ত্র হয়ে পড়েন সাধারণ মানুষ।

আফগানিস্তান তালিবানের (Taliban) দখলে যাওয়ার পর থেকে এখনও পর্যন্ত কমপক্ষে ১২৩০০০ আফগান নাগরিককে মার্কিন সেনা উদ্ধার করেছে বলে খবর। মার্কিন সেনা আফগানিস্তান ছাড়ার পর কাবুল বিমানবন্দরকে কীভাবে  ফের আগের অবস্থায় ফেরানো যায়, তা নিয়ে কাতার এবং তুরস্কের সঙ্গে তালিবান বৈঠক শুরু করেছে বলে খবর।