তিন চাকাতেই মুক্তি, এভাবেই খাবার ডেলিভারি দিয়ে অপারগতাকে জয় করেছেন এই যুবক
জোম্যাটোর ডেলিভারি বয় রামু(Photo Credit: Twitter)

জোম্যাটো, এই খাবার ডেলিভারি সংস্থার বিরুদ্ধে অভিযোগের শেষ নেই। তবে আজ  এমন একটি ঘটনার কথা বলব, যা জোম্যাটোকে গোটা বিশ্বের কাছেই সম্মানের আসনে বসিয়েছে। বিশেষ ক্ষমতা সম্পন্ন(Differently-abled man) ডেলিভারি বয় জোম্যাটোর( Zomato delivery man) খাবার ডেলিভারি করছেন রাজধানীতে। হ্যাঁ কোনও গল্প নয় এমন ঘটনাই ঘটেছে। ট্রাইসাইকেলের চাকা হাত দিয়ে ঘুরিয়ে ঘুরিয়েই গ্রাহকের বাড়ি খাবার পৌঁছে দিচ্ছেন ওই ব্যক্তি। এই ছবি ভাইরাল হতেই নেটিজনরা প্রশংসায় ভরিয়ে দিয়েছে খাবার ডেলিভারি সংস্থা জোম্যাটোকে।

জানা গিয়েছে, জোম্যাটোর ওই বিশেষ ক্ষমতা সম্পন্ন ডেলিভারি বয় হলেন রাজস্থানের বিওয়াড়ের বাসিন্দা রামু ভাই(Ramu Bhai)। তিনি রাজধানীতেই জোম্যাটোর(Delhi Zomato) এক আউটলেটে কাজ করেন। মূলত গ্রাহকদের ফরমায়েশি খাবার পৌঁছে দেওয়াই তাঁর কাজ। এবং বেশ নিষ্ঠার সঙ্গে তিনি কাজটি করে চলেছেন বেশ কিছুদিন হল। ট্রাইসাইকেলে খাবার নিয়ে যাওয়ার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় আপলোড হতেই ভাইরাল।

এমনিতে এঁটো খাবার দেওয়া থেকে শুরু করে পচা, পরিমাণে কম খাবার দেওয়া, রাস্তার মাঝেই খাবারের প্যাকেট খুলে ডেলিভারি বয়ের হাতসাফাই। জোম্যাটোর বিরুদ্ধে এমন বিবিধ অভিযোগের শেষ নেই। এসব কারণে সংস্থার বিশ্বাসযোগ্যতা গ্রাহকদের কাছে তলানিতে এসে ঠেকেছিল। কিন্তু এই যে একজন প্রতিবন্ধী তথা বিশেষ ক্ষমতা সম্পন্ন যুবককে কর্মসংস্থানের সুযোগ করে দিয়ে ফের লাইমলাইটে চলে এল জোম্যাটো। নেটিজেনদের মধ্যে যাঁরাই এই ভিডিওটি দেখছেন, তাঁরাই রীতিমতো ধন্য ধন্য করছেন। কমেন্ট বক্স ভরে উঠছে জোম্যাটোর সুখ্যাতিতে।

একই সঙ্গে মাহিন্দ্রা হিরোর(Mahindra, Hero) মতো গাড়ি প্রস্তুতকারক সংস্থাগুলির কাছেও নতুন প্রস্তাব রেখেছেন নেটিজেনদের একাংশ। প্রস্তাব অনেকটা এই রকম, সংস্থাগুলির প্রতি বিশেষ অনুরোধ, এই বিশেষ ক্ষমতা সম্পন্নদের জন্য যদি ব্যাটারি চালিত স্কুটার তৈরি হয় দেশের বাজারে তাহলে কর্মসংস্থানের সংকট অনেকটা কমবে। এই ধরনের মানুষজন অন্যের সাহায্য ছাড়াই নির্ভয়ে চলাফেরা করত পারবে।

একই সঙ্গে রামু ভাইয়ের প্রতিও অকুণ্ঠ, ভালবাস, সমর্থন ভেসে বেড়াচ্ছে নেটদুনিয়ায়। সবার একটাই দাবি, রামু ভাই যেন কোনওভাবেই জীবনযুদ্ধে হেরে না যান। তাঁকে তাঁর লড়াইটা চালিয়ে যেতেই হবে। তিনি তো হতাশাগ্রস্ত মানুষের কাছে আশার আলো। এক উল্লেখযোগ্য উদাহরণ, তাঁকে দেখেই কতজন মানসিক শক্তি পাবেন, যাঁরা ভেবেছিলেন তাঁদের দিন ফুরিয়েছে, আর কিছুই করার নেই।