Coronavirus Update: দেশজুড়ে একদিনে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ২১ হাজার, মৃত্যু ৩৭৯ জনের
Coronavirus (Photo: PTI)

নতুন দিল্লি, ৩ জুলাই: ভারতে একদিনে করোনা (COVID19) ভাইরাসে মৃতের সংখ্যা ৩৭৯ ও আক্রান্তের সংখ্যা ২০,৯০৩। ২০ হাজারের মাত্রা ছাড়িয়ে মোট করোনাক্রান্তের সংখ্যা ৬.২ লাখ। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রকের মতানুযায়ী, মোট করোনা রোগীর সংখ্যা ৬ লাখ ২৫ হাজার ৫৪৪, যার মধ্যে সক্রিয় ২,২৭,৪৩৯। সুস্থতার সংখ্যা ৩,৭৯,৮৯২।মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ১৮,২১৩।

করোনায় সবথেকে ক্ষতিগ্রস্ত রাজ্য মহারাষ্ট্রে (Maharashtra) আক্রান্তের সংখ্যা ধাক্কা দেওয়ার মত। সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা মোট ১,৮৬,৬২৬। মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৮,১৭৮। এরপরই রয়েছে তামিলনাড়ু, সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ৯৮,৩৯২। রাজধানী দিল্লিতেও বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা, এখনও পর্যন্ত সংখ্যাটা ৯২,১৭৫-য় গিয়ে দাঁড়িয়েছে। আরও পড়ুন, দেশে তৈরি 'কোভ্যাক্সিন' ১৫ আগস্টের মধ্যে চালু করার সিদ্ধান্ত ভারত বায়োটেক এবং আইসিএমআরের

ওয়ার্ল্ডওমিটারের রিপোর্ট অনুযায়ী, গোটা বিশ্বে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ১০ কোটি ৯৮৬ হাজার ১৬২। করোনা মহামারীতে সবথেকে ক্ষতিগ্রস্ত দেশগুলির মধ্যে চতুর্থ স্থানে রয়েছে ভারত। সর্বপ্রথমে রয়েছে আমেরিকা। সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ২ কোটি ৮৩৭ হাজার ১৮৯। এরপরই রয়েছে ব্রাজিল। সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ১ কোটি ৫০১ হাজার ১৮৯। করোনায় ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত রাশিয়া তৃতীয় স্থানে রয়েছে, যেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ৬ লাখ ৬১ হাজার ১৬৫।

এদিকে ভ্যাকসিন তৈরির জন্য মরিয়া ভারত। ভারতের একাধিক সংস্থা ভ্যাকসিন বানাচ্ছে, শুরু হয়েছে ট্রায়ালও। এরই মধ্যে, ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অফ মেডিকেল রিসার্চ (ICMR) এবং ভারত বায়োটেক ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেড (BBIL) সমন্বয়ে করোনভাইরাসের ভ্যাকসিনের জন্য তৈরির জন্য একত্রিত হয়েছে। ভারত বায়োটেক এবং আইসিএমআর আগামী ১৫ আগস্টের মধ্যে জনগণের জন্য দেশের তৈরি ভ্যাকসিন 'কোভাক্সিন' চালু করতে পারে বলে জানিয়েছে।