করতারপুর করিডরের উদ্বোধনের আগেই নানকানা সাহিবে বাবা গুরু নানক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিলান্যাস করবেন ইমরান খান
ইমরান খান(Photo Credit: IANS)

ইসলামাবাদ, ২৫ অক্টোবর: নানকানা সাহিবে বাবা গুরু নানক বিশ্ববিদ্যালয়ের (Baba Guru Nanak University) শিলান্যাস করবেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান (Imran Khan)। আগামী ২৮ অক্টোবর শিলান্যাসের অনুষ্ঠান হবে। এর পরেপরেই তিন নভেম্বর করতারপুর করিডরের উদ্বোধন করবেন ইমরান খান। সোমবার বেলা ১১টায় থাকছে বাবা গুরু নানক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিলান্যাস অনুষ্ঠান। এই উপলক্ষে যাবতীয় আয়োজন সম্পূর্ণ হয়েছে। অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর পাশাপাশি উপস্থিত থাকবেন পাঞ্জাব-সহ অন্যান্য প্রদেশের মন্ত্রীরা। আমন্ত্রিত রয়েছে বিদেশি রাষ্ট্রদূতও। উপস্থিত থাকবেন মন্ত্রী আইজাজ আহমেদ শাহ।

এদিকে গত বৃহস্পতিবারই ভারত-পাক দুই দেশের আধিকারিকরা করতারপুর করিডর উদ্বোধনকে কেন্দ্র করে একটি চুক্তিতে সই করেছেন। মূলত শিখ গুরু গুরু নানকের ৫৫০-তম জন্মজয়ন্তী উদযাপনের উপলক্ষেই এই করতারপুর করিডর তৈরি হয়েছে। সই সাবুদের অনুষ্ঠানে দুই দেশের সীমান্তে উপস্থিত ছিলেন পাকিস্তানের বিদেশ মন্ত্রকের আধিকারিকরা। সার্কভুক্ত দেশের ডিরেক্টর জেনারেল মহম্মদ ফয়জল ও ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের যুগ্ম সচিব এসসিএল দাস। উপস্থিত প্রত্যেকেই নিজেদের দেশের তরফে ওই চুক্তিপত্রে সই করেন। তবে চুক্তিপত্রে করতারপুরে আগত ভারতীয় পুণ্যার্থীদের কাছ থেকে ২০ মার্কিন ডলার পরিষেবা কর তোলার প্রসঙ্গটি এড়িয়ে গিয়েছে পাকিস্তান। তার অর্থ দাঁড়ায় ওই টাকা দিয়েই ভারতীয় পুণ্যার্থীদের করতারপুর সাহিব গুরুদ্বারে যেতে হবে। প্রতিদিন ৫ হাজার ভারতীয় পুণ্যার্থী গুরু নানকের জন্মজয়ন্তী উপলক্ষে করতারপুর করিডর পেরোতে  পারবেন। আরও পড়ুন-জমিয়তে উলেমায়ে ইসলামের সরকার বিরোধী আজাদি মিছিলের অনুমতি দিল পাকিস্তান

এর আগে ভারতের তরফে ওই ২০ মার্কিন ডলার পরিষেবা কর মকুবের আবেদন করা হয়েছিল পাকিস্তানকে তবে ইসলামাবাদ দিল্লির এই আবেদনে কর্ণপাত করেনি তা বেশ বোঝা যাচ্ছে। আগামী ৩ নভেম্বর করতারপুর করিডর পাকিস্তানের তরফে উদ্বোধন করবেন ইমরান খান। এই অনুষ্ঠানে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ডঃ মনমোহন সিংকে আমন্ত্রণ জানানোর পরিকল্পনা করেছিল পাকিস্তান, তবে মনমোহন সিং তা জানা মাত্রই নাকচ করে দিয়েছেন। তাঁর জন্ম লাহোরে হলেও প্রধানমন্ত্রী থাকাকালীন একবারও পাকিস্তানে যাননি তিনি। এবার আমন্ত্রণ পেয়েও তা প্রত্যাখ্যান করলেন তবে ভারতের করতারপুর করিডরের অংশ উদ্বোধনে পাঞ্জাবের মুখ্যমমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ ও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে তাঁকেও আমন্ত্রণ জানিয়েছেন। এখন দেখার, সেখানে যান কি না ইউপিএ জমানার প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী।