Australian Man Banned From Leaving Israel Until 31 December 9999: স্ত্রী বিচ্ছেদ চান, ৮ হাজার বছর পর্যন্ত ইজরায়েল ত্যাগে নিষেধাজ্ঞা অস্ট্রেলীয় স্বামীর
Representational Image (Photo Credit -pixabay)

তেল আবিব, ১৮ জানুয়ারি:  অদ্ভূত বিবাহ বিচ্ছেদ আইনের কবলে নাকাল অস্ট্রেলীয় ভদ্রলোক। তাঁর অপরাধ হল ইজরায়েলি মহিলাকে বিয়ে করা। ভদ্রলোকের নাম নোয়াম হুপার্ট( ৪৪)। ২০১২ সাল নাগাদ তিনি ছেলেমেয়েদের সঙ্গ দেওয়ার জন্য অস্ট্রেলিয়া ছেড়ে পাকাপাকি ভাবে ইজরায়েলে (Israel) চলে আসেন। এই সময় তাঁর স্ত্রী সরে গেছেন। পরের বছর অর্থাৎ ২০১৩ সালে বিবাহ বিচ্ছেদের মামলা দায়ের করেন ওই মহিলা। এরপরে আদালতে নোয়াম হুপার্টের ইজরায়েল ত্যাগের উপরে নিষেধাজ্ঞা জারি করে। স্পষ্ট করে বলা হয়, যতদিন পর্যন্ত তাঁর ছেলেমেয়েদের বয়স ১৮ বছর হচ্ছে ততদিন পর্যন্ত প্রতিমাসে ছেলেমেয়েদের খরচ বাবদ হুপার্ট ইজরায়েলি মুদ্রায় ৫ হাজার সিকেলস দেবেন। আরও পড়ুন- Cristiano Ronaldo On The Best FIFA Special Award 2021: ২০২১ ফিফার বেস্ট স্পেশ্যাল পুরস্কার জিতে আপ্লুত ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো, কী বললেন তিনি?

এককথায় তিনি কোনওভাবেই ইজরায়েল ছাড় তে পারবেন না। এমনকী, কাজের জন্য বা ছুটিতেও নয়। তিনি বলেন, “ ২০১৩ সাল থেকে আমি ইজরায়েলে প্রায় বন্দি হয়ে আছি। তাঁর মতো এমন অনেক বিদেশি নাগরিক ইজরায়েল এমন বিপাকে পড়ে আছেন। সবার একটাই অপরাধ, তাঁরা ইজরায়োলি মহিলাকে বিয়ে করেছেন।” হুপার্ট পেশায় ওষুধ কম্পানির অ্যানালিটিক্যাল কেমিস্ট। তিনি তাঁর গল্প সংবাদ মাধ্যমকে জানালেন, যাতে অন্যান্য অস্ট্রেলীয়রা এই বিষয়ে সতর্ক থাকে।

ইজরায়েলে ছেলেমেয়েকে বড় করতে বিদেশী স্বামীর বিরুদ্ধে বিচ্ছেদ আইনকে কাজে লাগান মহিলারা। সেই স্বামীর আর্থিক সঙ্গতি থাক বা না থাক তাঁকে ওই টাকা দিতেই হবে। অনেক সময় টাকার অঙ্ক ব্যক্তির উপার্জনের অঙ্কের থেকেও বেশি হতে পারে। এই বিষয়ে আদালত ব্যক্তির উপার্জন কত সে বিষয়ে কোনওরকম খোঁজ খবর না নিয়েই এই বোঝা চাপিয়ে দেয়। টাকা দিতে পারলে ভাল, নাহলে ২১ দিন পর্যন্ত জেল হেফাজতে থাকতে হবে সেই ব্যক্তিকে।হুপার্টকে যেমন ছেলেমেয়েদের জন্য ১৮.১৯ কোটি টাকা ব্যয় করতে হবে।অনাদায়ে তাঁকে আট হাজার বছর ইজরায়েলে থাকতে হবে।