Sandeshkhali: নাবালিকাকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে সন্দেশখালিতে নতুন করে বিতর্ক, গ্রেফতার এক তৃণমূল কর্মী
Sandeshkhali (Photo Credits: X)

সন্দেশখালি, ১৯ মেঃ ভোটের মাঝে নতুন করে উত্তপ্ত সন্দেশখালি (Sandeshkhali)। সদ্য এলাকার দুই মহিলাকে নির্যাতনের অভিযোগ সামনে এসেছে। সেই অভিযোগের মঝে এবার এক নাবালিকাকে যৌন হেনস্থার অভিযোগে নতুন করে বিতর্ক তৈরি হয়েছে। অষ্টম শ্রেণির পড়ুয়া ওই নাবালিকাকে যৌন নিগ্রহের অভিযোগে এক স্থানীয় তৃণমূল কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শ্লীলতাহানি, মারধর সহ পকসো আইনের ধারায় অভিযুক্তের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

সন্দেশখালি (Sandeshkhali) থানায় অভিযোগ দায়ের করে নাবালিকার মা জানান, শুক্রবার রাতে মেয়ে যখন ঘরে ঘুমাচ্ছিল সেই সময় ওই যুবক বাড়ির বেড়া ভেঙে ভিতরে প্রবেশ করে। বছর ১৫-এর মেয়েকে ধর্ষণের চেষ্টা করে। তাঁর চিৎকার চেঁচামেচিতে ভয়ে পালিয়ে যায় অভিযুক্ত। ছুটে আসে বাড়ির লোক, প্রতিবেশীরা। এরপর মেয়েকে নিয়ে সন্দেশখালি থানায় অভিযোগ দায়ের করেন মহিলা। তাঁর অভিযোগের ভিত্তিতে অভিযুক্ত যুবককে আটক করেছে পুলিশ। জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। তদন্তে জানা গিয়েছে, বছর কুড়ির ওই যুবক এলাকার তৃণমূল কর্মী। সন্দেশখালি থানায় অভিযোগ দায়ের হওয়ার পাশাপাশি অভিযুক্ত তৃণমূল কর্মীর বিরুদ্ধে সিবিআই পোর্টালেও অভিযোগ জমা পড়েছে।

এই ঘটনার দিন দুই আগেই সন্দেশখালির দুই মহিলাকে নির্যাতনের অভিযোগ সামনে এসেছিল। অভিযোগকারী দুই মহিলার মধ্যে একজন তৃণমূলের পঞ্চায়ের কমিটির সদস্য। অন্যজন বিজেপি ঘনিষ্ঠ। তৃণমূল পঞ্চায়ের কমিটিরই দুই সদস্যের বিরুদ্ধে নির্যাতনের অভিযোগ তুলেছেন ওই দুই মহিলা। তৃণমূল নেতা দিলীপ মল্লিক এবং দলীয় কর্মী সৈকত দাস সহ মোট ৫ জনের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের হয়েছে। অন্যদিকে ধামাখালির একটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের সামনে শুক্রবার থেকেই একটি অস্থায়ী শিবির চালু করেছে সিবিআই (CBI)। সন্দশখালির মানুষ এখন থেকে সরাসরি সেখানে এসে অভিযোগ জানাতে পারবেন বলেই জানা যাচ্ছে।