Hoogly: রাম মন্দির উদ্বোধনের মাঝেই তারকেশ্বরে চাঞ্চল্যকর ঘটনা, মা-দিদিকে পুড়িয়ে মেরে আত্মঘাতী ছেলে
প্রতীকী ছবি

তারকেশ্বর, ২২ জানুয়ারিঃ সোমবার অযোধ্যায় (Ayodhya) রাম মন্দিরের (Ram Mandir) উদ্বোধন ঘিরে যখন দিকে দিকে খুশির উচ্ছ্বাস। দেশ তথা বিভিন্ন রাজ্যের রাম মন্দিরগুলোতে সড়াম্বরে হচ্ছে রামের পুজো, বাজছে রাম ভজন। ঠিক সেই সময়ে হুগলির (Hoogly) তারকেশ্বরে (Tarakeswar) ঘটে গেল এক চাঞ্চল্যকর ঘটনা। বাড়ি থেকে উদ্ধার হল তিন সদস্যের মৃতদেহ। মা এবং মেয়ের অগ্নিদগ্ধ দেহ পড়ে রয়েছে ঘরের মেঝেতে। ছেলের দেহ ঝুলছে ফিলিংয়ের সঙ্গে। পুলিশের প্রাথমিক অনুমান, মা এবং দিদিকে আগুনে পুড়িয়ে খুন করে নিজে আত্মঘাতী (Suicide) হন ছেলে।

সোমবার ঘটনাটি ঘটেছে তারকেশ্বরের (Tarakeswar) চাঁপাডাঙা পঞ্চায়েতের বিশ্বাসপাড়ায়। ৩১ বছরের মেয়ে সুজাতা এবং ২৭ বছরের ছেলে শুভমকে নিয়ে ওই বাড়িতে থাকতেন বছর ৫৮-র বিজলি মাইতি। এদিন সকাল থেকে পরিবারের কারুর কোন সাড়াশব্দ না মেলায় সন্দেহ হয় প্রতিবেশির। কৌতূহলবশত কয়েকজন স্থানীয় বাড়ির কাছে যান ডাকাডাকি করতে। বাড়ির কাছে যেতেই নাকে আসে পোড়া গন্ধ। সঙ্গে সঙ্গে তাঁরা পুলিশকে খবর দেন। তবে পুলিশ আসার আগেই বাড়ির দরজা ভেঙে ফেলেন স্থানীয়রা। তারপরেই হতবাক সকলে। ঘরের মেঝেতে পড়ে রয়েছে মা এবং মেয়ের পোড়া দেহ। সিলিং থেকে ঝুলছে ছেলে।

পুলিশ এসে তিনটি মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্যে পাঠিয়েছে। তবে কী কারণে পরিবারের এমন পরিণতি তা এখনও স্পষ্ট নয়। প্রতিবেশীদের অনুমান, পারিবারিক অশান্তির জেরে এমন কাণ্ড ঘটাতে পারেন শুভম। তবে কী নিয়ে মাইতি পরিবারের মধ্যে অশান্তি ছিল তা কেউ বলতে পারছেন না।