Singapore: সিঙ্গাপুরে সশস্ত্র এক অনাবাসী ভারতীয় অফিসার নাবালিকার উপর যৌন প্রচেষ্টার জন্য দোষ স্বীকার করেছেন (দেখুন প্রতিবেদন)
Representational Image (File Photo)

৫০ বছর বয়সী ভারতীয় বংশোদ্ভূত সিঙ্গাপুর সশস্ত্র বাহিনীর এক ওয়ারেন্ট অফিসার ২০২১ সালে করা একটি যৌন নিপীড়নের মামলায় নিজের অপরাধ স্বীকার করেছেন। অভিযুক্ত অফিসারের নাম সুব্রামানিয়াম থাবুরান রাঙ্গাসামি। দ্য স্ট্রেইটস টাইমস জানিয়েছে, ফেব্রুয়ারী ১ তারিখে রাঙ্গাসামির সাজা ঘোষণার সময় অন্য দুটি অভিযোগ বিবেচনা করা হবে। যার সঙ্গে এই ঘটনাটি ঘটেছিল সেই মেয়েটির পরিচয় গোপন রাখা হয়েছে। এই মুহুর্তে তাঁর বয়স ১৭, তবে অভিযুক্ত অফিসার যখন তার সঙ্গে সেক্স করার চেষ্টা করেছিল তখন তাঁর বয়স ছিল ১৫ বছর।

ডেপুটি পাবলিক প্রসিকিউটর সুনীল নায়ার বলেছেন যে ঘটনাটি ঘটেছিল ৬ ডিসেম্বর, ২০২১ সালে স্কুল ছুটির সময়। ভুক্তভোগী নাবালিকার সকাল ১১টায় তার স্কুল কাউন্সেলরের সাথে একটি অনলাইন মিটিং করার কথা ছিল, বাড়িতে অন্য লোক থাকায় কিছু গোপনীয়তার জন্য সে একটি বহুতল কারপার্কে হেঁটে যাচ্ছিল। গাড়ি পার্কের চতুর্থ তলায় ৫০বছর বয়সী সুব্রামানিয়ামের পাশ দিয়ে হেঁটে ওই ছাত্রী চলে যায় সেসময় অভিযুক্ত অফিসার তার মোটরসাইকেলে কাজের জন্য যাওয়ার অপেক্ষায় ছিলেন।প্রায় এক ঘণ্টা পর, মেয়েটি গাড়িপার্কের পঞ্চম তলা থেকে হেঁটে যাওয়ার সময় পড়ে গিয়ে সাহায্যের জন্য দরজায় ধাক্কা দেয়। আওয়াজ শুনে সুব্রামানিয়াম তাকে সাহায্য করতে এগিয়ে আসেন। এরপর তাঁরা কারপার্কের চতুর্থ তলার সিঁড়িতে বসে আড্ডা দেয়, কিন্তু প্রায় এক ঘন্টা পরে, সুব্রামানিয়াম এবং মেয়েটি অন্তরঙ্গ হয়ে ওঠে। এরপর মেয়েটি তার ওপর যৌনকর্ম শুরু করে। সুব্রামানিয়ামও তার সঙ্গে যৌন সম্পর্ক স্থাপনের চেষ্টা করেন, কিন্তু ব্যর্থ হন। তার পরে পোশাক পরে তারা নিজেদের নম্বর বিনিময় করে আলাদা হয়ে যায়।

৮ ডিসেম্বর, ২০২১-এ, ঘটনার দুই দিন পরে, ভুক্তভোগী একটি পুলিশ রিপোর্ট করেছিলেন কারণ তিনি অনুভব করেছিলেন যে সুব্রামানিয়াম তার সুবিধা নিয়েছেন। এরপর আদালত দেখে যে তারা হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে যোগাযোগে ছিল, তবে বার্তাগুলি কখনই যৌন প্রকৃতির ছিল না।প্রসিকিউটর উল্লেখ করেছেন যে অভিযুক্ত ব্যক্তি কোনও সময়েই শিকারের বয়স দ্বারা বিভ্রান্ত হননি এবং তাঁর বয়ানে যোগ করেছেন যে তিনি ভিকটিমকে ঘনিষ্ঠ হতে বাধ্য করেননি ।

এরপর প্রথম ওয়ারেন্ট অফিসার সুব্রামানিয়ামকে গ্রেফতারের পর সমস্ত দায়িত্ব থেকে বরখাস্ত করা হয়েছে।আদালতের শুনানি শেষ হওয়ার পরে সিঙ্গাপুর সশস্ত্র বাহিনী( SAF) আরও পদক্ষেপ শুরু করবে, যার মধ্যে তাকে চাকরি থেকে অব্যাহতি দেওয়া অন্তর্ভুক্ত থাকতে পারে। বাহিনীর এক কর্মকর্তা বলেন -  এসএএফ তার চাকুরীজীবীদের শৃঙ্খলা ও সততার উচ্চ মানদণ্ডে অধিষ্ঠিত করে এবং যারা অপরাধ করে তাদের আইন অনুযায়ী মোকাবিলা করা হবে। ১৬ বছরের কম বয়সী নাবালিকার সঙ্গে যৌন সংসর্গের  জন্য সুব্রামানিয়ামের ১০ বছর পর্যন্ত জেল বা জরিমানা বা উভয় হতে পারে।