Mamata Banerjee at Purulia Rally: পুরুলিয়ার জনসভায় ভাষা আন্দোলনের জয় জয়কার থেকে প্রচুর কর্মসংস্থানের আশ্বাস মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির
মমতা ব্যানার্জি (Photo Credits PTI)

পুরুলিয়া, ১৯ জানুয়ারি: আজ পুরুলিয়ার ২ ব্লকের হুটমুড়া ফুটবল গ্রাউন্ডে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি (Mamata Banerjee) জনসভা করেছেন। মঞ্চে তাঁর সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন তৃণমূল সাংসদ শতাব্দী রায়ও। 'আমাদের অভাব, অভিযোগ আমরা বলব দিদিকে। বাইরের কাউকে বলতে দিতে দেব না, মুখ্যমন্ত্রীর পাশে দাঁড়িয়ে জানান শতাব্দী।' অন্যদিকে, খেজুরির হেঁড়িয়াতে আজ পাল্টা সভা করেন শুভেন্দু অধিকারী।

শেষ বার মমতা ব্যানার্জি পুরুলিয়া এসেছিলেন ২০১৯-এর পর। আজ জনসভা থেকে আদিবাসী মা, ভাই, বোনদের উদ্দেশে বক্তৃতা রেখে তিনি বলেছেন,''পুরুলিয়া প্রথম রাজ্য, যেখানে প্রথম ভাষা আন্দোলন হয়। জোর করে এখানে একটি ভাষা চাপানো হয়েছিল পুরুলিয়া রুখে দাঁড়িয়েছিল। পুরুলিয়া বহিরাগতদের কাছে মাথা নত করেনি। আদিবাসীদের জন্য কাজ করেছে রাজ্য সরকার। ভোট নিয়ে পালিয়ে গিয়েছে দিল্লি। ভোটের আগে মন্ডা-মিঠাই, ভোটের পর কাঁচকলা। বিজেপি মাওবাদীদের থেকেও ভয়ঙ্কর। বিষাক্ত সাপ, এক ছোবলেই শেষ। বীরসা মুণ্ডাকে অপমান করেছে, অন্যের ছবিতে মালা দিয়েছে। একজন সিনেমা তৈরি করেন, তাঁকে ধমকাচ্ছে বিজেপি, এত বড় ক্ষমতা! রাজ্যে এমন করলে মুখে প্লাস্টার দিয়ে দেবে রাজ্যবাসী। আমার মিটিংয়ে বিশৃঙ্খলা তৈরির চেষ্টা করছে বিজেপি। গ্রীষ্মে পুরুলিয়ার জলকষ্ট ঠেকাতে ব্যবস্থা নেব। পুরুলিয়ায় নতুন শিল্প গড়ে উঠবে। প্রচুর কর্মসংস্থান হবে এই সব জায়গায়। আরও ২০ লক্ষ সাইকেল কেনা হচ্ছে। সবুজসাথীতে তা দেওয়া হবে। ট্যাবলেটের টাকা দু-একদিনের মধ্যে অ্যাকাউন্টে ঢুকবে। ছাত্র যৌবন বাংলাকে বেচতে দিও না। স্বাধীন বাংলার নাগরিক আমরা। আমরা মাথা বিক্রি করব না।" আরও পড়ুন, 'নন্দীগ্রামে ৫০ হাজার ভোটে হারাব মাননীয়াকে, নয়তো রাজনীতি ছেড়ে দেব', চ্যালেঞ্জ ছুঁড়লেন শুভেন্দু অধিকারী

গতকাল নন্দীগ্রামে সভা করেন মমতা ব্যানার্জি। আসন্ন বিধাননভা নির্বাচনে তিনি নন্দীগ্রাম থেকে প্রার্থী হবেন বলে ঘোষণাও করেন। ফলে রাজনীতির ময়দানে শুভেন্দু অধিকারী বনাম মমতা ব্যানার্জির লড়াই দেখতে প্রস্তুত রাজ্যবাসী।