Suvendu Adhikary: 'নন্দীগ্রামে ৫০ হাজার ভোটে হারাব মাননীয়াকে, নয়তো রাজনীতি ছেড়ে দেব', চ্যালেঞ্জ ছুঁড়লেন শুভেন্দু অধিকারী
দিলীপ ঘোষ এবং শুভেন্দু অধিকারী। Photo Source: Twitter

কলকাতা, ১৮ জানুয়ারি: জেলায় মমতা (Mamata Banerjee)। শহরে শুভেন্দু (Suvendu Adhikary)। ১৮ জানুয়ারি সকাল থেকেই রাজ্য রাজনীতি ছিল সরগরম। কলকাতায় মুদিয়ালির কাছে শুভেন্দু অধিকারী এবং দিলীপ ঘোষের (Dilip Ghosh) মিছিল ঘিরে সকাল থেকেই বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি তৈরি হয়। ইট-পাটকেল ছোঁড়ার অভিযোগ ওঠে তৃণমূলের বিরুদ্ধে। পরিস্থিতি সামাল দিতে হিমশিম খায় পুলিশও। ২১-র নির্বাচনে নন্দীগ্রাম (Nandigram) থেকে প্রার্থী হিসেবে ভোটে লড়বেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। এই ঘোষণার পরই মমতার পাড়া, রাসবিহারী অ্যাভিনিউয়ের মঞ্চে তৃণমূল সুপ্রিমোকে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিলেন শুভেন্দু অধিকারী।

এদিন টালিগঞ্জ থেকে মিছিল শুরু হয়। শেষ হয় রাসবিহারী মোড়ে। সেখানেই মঞ্চে দাঁড়িয়ে মমতা ব্যানার্জি বলেন, "শুনুন মাননীয়া। আপনাকে যদি হাফ লাখে ভোটে না হারাতে পারি নন্দীগ্রামে। তাহলে রাজনীতি ছেড়ে দেব।" এদিন নন্দীগ্রামের সভায় ওই কেন্দ্রে দাঁড়ানোর ইচ্ছে প্রকাশ করেন মমতা ব্যানার্জি। ভবানীপুরে কে দাঁড়াবে, সেই বিষয়টি উহ্য রাখলেও নিজেও দাঁড়াতে পারেন ওই কেন্দ্র থেকে মমতা, সেটির ইঙ্গিত দিয়ে রাখেন তিনি। নন্দীগ্রামের বিধায়ক ছিলেন শুভেন্দু অধিকারী।

প্রসঙ্গত ঠিক পাঁচ বছর আগে জানুয়ারি মাসেই নন্দীগ্রামের সভা থেকে শুভেন্দু অধিকারীকে প্রার্থী করেছিলেন খোদ মমতা ব্যানার্জি। কিন্তু সেটাই শেষ! এরপর নন্দীগ্রামে সেভাবে সফর করেননি মমতা ব্যানার্জি। নন্দীগ্রামের দায়িত্ব পুরোপুরিই ছেড়ে দিয়েছিলেন মাননীয় শুভেন্দু অধিকারীর উপরে। নন্দীগ্রামের মানুষ সুখে-দু:খে সবসময়ই পাশে পেয়েছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। ২১-র নির্বাচনের আগে দলবদল করে বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন তিনি। এদিন শুভেন্দু অধিকারী বলেন, "আপনি ২০১৫-র ২১ ডিসেম্বর নন্দীগ্রামে শেষবারের জন্য এসেছিলেন। ভোটের আগে নন্দীগ্রামের কথা মনে পড়েছে আপনার? নন্দীগ্রামের জন্য কী করেছেন আপনি? অষ্টম শ্রেণির পাঠ্যবইয়ে বরং রয়েছে সিঙ্গুরে শিল্প বন্ধ করে দেওয়ার কথা।"

রাসবিহারীর মঞ্চ থেকে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষকে পাশে নিয়ে আত্মবিশ্বাসী শুভেন্দু অধিকারী। তিনি বলেন, "৫০ হাজার ভোটে মমতা ব্যানার্জিকে হারাতে না পারলে আমি ছেড়ে দেব রাজনীতি। নন্দীগ্রামের মানুষের জন্য কী করেছেন আপনি। ভেবে দেখুন একবার। "দক্ষিণ কলকাতার সব আসনে জিতবে বিজেপি।পরের রোড শো হবে গড়িয়া থেকে হাজরা পর্যন্ত।"২০১৬ বিধানসভা নির্বাচনে নন্দীগ্রামে ৮১,২৩০ ভোটে জিতেছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। লোকসভা নির্বাচনে ভোটের ব্যবধান কমলেও ৬৮,৩৯১ ভোটে এগিয়ে ছিলেন তিনি। এবার নন্দীগ্রাম থেকেই কী শুভেন্দু অধিকারীকে প্রার্থী করবে বিজেপি? সেটা এখন সময়ই বলবে।