Monsoon Rain in West Bengal: দক্ষিণবঙ্গে মুষলধারায় বৃষ্টি, ভিক্টোরিয়ায় বজ্রপাতে মৃত্যু ১ জনের
কলকাতায় বৃষ্টি(Photo Credit: Facebook)

কলকাতা, ১৬ আগস্ট:  তুমুল বৃষ্টি ও বজ্রপাতে বিপর্যস্ত শহর কলকাতা-সহ লাগোয়া উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলা। শুক্রবার বেলা গড়িয়ে বিকেল নামতে না নামতেই আকাশ কালো করে মুষলধারে বৃষ্টি নামে। সেই সঙ্গে মুহুর্মুহু বজ্রপাত। আর এই বাজ পড়েই খাস কলকাতায় ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালের সামনে মৃত্যু হল এক ব্যক্তির। এই ঘটনায় বেশ কয়েকজন গুরুতর আহত হয়েছেন। তড়িঘড়ি তাঁদের উদ্ধার করে এসএসকেএম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পরে পরীক্ষা করার পর হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে আহতদের মধ্যে বেশ কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। আরও পড়ুন-এবার তৃণমূল নেতারা পাকিস্তানের পতাকা পাবে, হুমকি দিলেন দিলীপ ঘোষ

এদিন সকাল থেকে আদ্রতাজনিত কারণে অস্বস্তি ছিল মাত্রাছাড়া। ঝকঝকে রোদ্দুর থাকলেও বিন্দুমাত্র হাওয়া ছিল না। সূর্য মাথায় ওঠার কিছুক্ষণ পর থেকেই আকাশে মেঘ জমতে শুরু করে। যত বেলা গড়িয়েছে মেঘ ততই ঘন হয়েছে। পরিস্থিতির উপরে নজর রেখেছিলেন কলকাতা পুরসভার কর্মীরা, তাই মেঘ জমতেই পাম্পিং স্টেশন থেকে সতর্ক করা হয়। ভারী বৃষ্টি হলে শহরের বিভিন্ন প্রান্তে জমা জল বের করতে হবে। ঘটেছেও তাই।

আলিপুর হাওয়া অফিস সূত্রে জানা গিয়েছে, গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশ লাগোয়া একটি ঘূর্ণাবর্ত অবস্থান করছে। এর জেরে আগামী ৪৮ ঘণ্টায় ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে কলকাতা, দুই ২৪ পরগনা, দুই মেদিনীপুর ও মুর্শিদাবাদে। আলিপুর আবহাওয়া দপ্তরের অধিকর্তা গণেশকুমার দাস বলেন, “ঘূর্ণাবর্তের কারণে আগামী ৪৮ ঘণ্টা ভারী বৃষ্টি হবে। তবে নিম্নচাপ দানা বাঁধার সম্ভাবনা কম। এই সময় কলকাতা-সহ উপকূলের জেলাগুলিতে ভালই বৃষ্টি হবে।” উপকূলবর্তী জেলায় ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা থাকায় মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে যেতে নিষেধ করা হয়েছে। এই বৃষ্টির পরিমাণ সাত থেকে ১১ সেন্টিমিটার পর্যন্ত হতে পারে। তবে দুদিন ঘূর্ণাবর্তের জেরে বৃষ্টি হলেও নিম্নচাপ দান বাঁধতে পারবে না।