Sourav Ganguly Health Update: শুক্রবারেই জেনারেল বেডে বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট, দুদিনের মধ্যে বাড়ি ফিরবেন মহারাজ
টোকিয়ো অলিম্পিকে ভারতের দূত সৌরভ গাঙ্গুলি (Photo Credits: IANS)

কলকাতা, ২৯ জানুয়ারি: ভাল আছেন সৌরভ গাঙ্গুলি (Sourav Ganguly)। গতকাল তাঁর বুকে আরও দুটি স্টেন্ট বসেছে। রাতে কোনওরকম শরীর খারাপ করেনি। আজ শুক্রবার ফের ইসিজি-সহ মহারাজের হৃদযন্ত্রের বেশকিছু পরীক্ষা হবে। বেলার দিকে তাঁকে জেনারেল বেডে স্থানান্তর করা হতে পারে বলে জানিয়েছে অ্যাপোলো হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। এমনকী শরীর ঠিক থাকলে আগামী কাল শনিবার বা রবিবারে হাসপাতাল থেকে ছুটিও দিয়ে দেওয়া হতে পারে মহারাজকে। এদিন সেই খবর দিলেন সৌরভের চিকিৎসায় গঠিত মেডিক্যাল বোর্ডের অন্যতম সদস্য ডাক্তার আফতাব খান। গতকাল সৌরভকে দেখতে হাসপাতালে এসেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁকে মহারাজ বলেছেন, সুস্থ হয়ে খুব শিগগির কাজে ফিরছেন। চলতি মাসের ২ তারিখেই বাড়িতেই শরীরচর্চা করার সময় হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েছিলেন বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট। আরও পড়ুন-Budget 2021: করোনাকালে সংসদের বাজেট অধিবেশন, আজ পেপারলেস অর্থনৈতিক সমীক্ষা পেশ করবেন নির্মলা সীতারমণ

সেই সময় তড়িঘড়ি তাঁকে উডল্যান্ডস হাসপাতালে ভর্তি করা হলে চিকিৎসকরা পরীক্ষা করে জানান, সৌরভের হৃদযন্ত্রের তিনটি ধমনীতে ব্লকেজ রয়েছে। এরপরই সৌরভের বুকে বসে একটি স্টেন্ট তাঁকে দেখতে কলকাতায় আসেন চিকিৎসক দেবী শেঠি। গত বুধবার ফের বুকে ব্যথা অনুভব করলে প্রাক্তন ক্রিকেট অধিনায়ককে গ্রিন করিডর করে অ্যাপোলো হাসপাতালে পৌঁছে দেয় কলকাতা পুলিশ। ক্যাথলাবে পরীক্ষার পর বৃহস্পতিবার অ্যাঞ্জিওপ্লাস্টি হয় সৌরভের। এরপর দুটি স্টেন্টও বসে। গোটা চিকিৎসা প্রক্রিয়ার তত্ত্বাবধানে ছিলেন চিকিৎসক দেবী শেঠি ও অশ্বিন মেহতা।

হাসপাতাল ছাড়ার আগে দেবী শেঠি জানান, প্রাক্তন ক্রিকেট অধিনয়াকের অবস্থা স্থিতিশীল। এখন বেশ কিছুদিন হাসপাতালেই থাকতে হবে সৌরভকে। এদিন বিকেলে মহারাজকে দেখতে অ্যাপোলোতে পৌঁছান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সৌরভের সঙ্গে তাঁর কথাও হয়। পরে জানান, ভাল আছে সৌরভ, ওঁর দ্রুত সুস্থতা কামনা করি। গতকাল সৌরভকে অক্সিজেন সাপোর্টেই রাখা হয়েছে। তবে আচ্ছন্ন ভাবটা কেটেছে। হদপিণ্ডের আরও দুটি স্টেন্ট বসানোর পর বিসিসিআই প্রেসিডেন্টের দৈনন্দিন কাজকর্মের যে রুটিন তা বদল হতে চলেছে। কর্মক্ষেত্রের বিশাল চাপ তাঁর পক্ষে নেওয়া বেশ ক্ষতিকর তা চিকিৎসকরা মনে করিয়ে দিয়েছেন। কবে সুস্থ হয়ে মহারাজ কাজে ফিরবেন তা এখনও অনিশ্চিত।