Anis Khan Murder Case: 'আনিস খানের পরিবার লড়তে চাই, শুভেন্দু অধিকারী পাশে আছে', বললেন রাজ্যের বিরোধী দলনেতা
Suvendu Adhikari. (Picture Credits: ANI)

কলকাতা, ২২ ফেব্রুয়ারি:  দিলীপ ঘোষের (Dilip Ghosh) পর এবার শুভেন্দু অধিকারী। আনিস খান হত্যা মামলায় বিস্ফোরণ ঘটালেন রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari)। শুভেন্দু অধিকারী অভিযোগ করেন, হাওড়া গ্রামীণের পুলিশ সুপার সৌম্য রায় এবং অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইন্দ্রজিৎ সরকারের নির্দেশেই আনিস খানকে খুন করা হয়েছে। আনিস খান হত্যা মামলার তদন্তে যে দুই পুলিশ কর্মীকে সাসপেন্ড করা হয়েছে, তাঁরা কী করবেন? পদস্থ দুই পুলিশ আধিকারিই আনিস খানকে খুনের নির্দেশ দেন বলে তোপ দাগতে দেখা যায় শুভেন্দু অধিকারীকে। শুধু তাই নয়, আনিস খান হত্যা মামলার তদন্ত কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার হাতে যাওয়া উচিত বলেও মন্তব্য করেন শুভেন্দু অধিকারী।

আনিস খান হত্যা মামলার (Anis Khan Murder Case) তদন্তে সিট গঠন করা হয়েছে রাজ্য সরকারের তরফে। সিআইডি আধিকারিক জ্ঞানবন্ত সিংয়ের তত্ত্বাবধানে কাজ শুরু করে বিশেষ তদন্তকারী দল। আনিস খান হত্যা মামলার তদন্ত সিট শুরু করার পর ৩ পুলিশ কর্মীকে সাসপেন্ড করা হয়। কর্তব্যে গাফিলতির জন্যই কি সেই রাতে আনিস খানকে খুন হতে হয়? এমন প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। ৩ পুলিশ কর্মীকে সাসপেন্ডের ঘটনা প্রকাশ্যে আসার পর বিষয়টি নিয়ে তোপ দাগতে শুরু করেন শুভেন্দু অধিকারী।

আরও পড়ুন:  Anis Khan Murder Case: আনিস খান হত্যা মামলায় SIT গঠন রাজ্যের, বিস্ফোরণ দিলীপ ঘোষের

প্রসঙ্গত আনিস খানের মৃত্যুর তদন্ত যাতে সিবিআই করে, সে বিষয়ে দাবি তুলতে শুরু করেছে প্রয়াত ছাত্রনেতার পরিবার। ফলে আনিস খানের পরিবারের সদস্যরা যদি লড়াই করতে চান, তাহলে শুভেন্দু অধিকারী তাঁদের পাশে রয়েছেন বলেও মন্তব্য করেন রাজ্যের বিরোধী দলনেতা।