Sabarimala Temple Row: ১২ বছরের নাবালিকাকে আইয়াপ্পা দর্শনের জন্য ট্রেকিংয়ের অনুমতি দিল না পুলিশ
শবরিমালায় ভক্ত সমাগর (Photo Credit: IANS)

ত্রিশূর, ১৯ নভেম্বর: শবরিমালায় (Sabarimala temple) ১০-থেকে ৫০ বছর বয়সী মহিলারা প্রবেশ করতে পারবেন কি না তানিয়ে দ্বন্দ্ব রয়েই গিয়েছে। যেহেতু ২০১৮-তে তৎকালীন প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্র সমস্ত বয়সের মহিলাদের শবরিমালায় প্রবেশাধিকার মঞ্জুর করলেও রায় পরবর্তী সময়ে কেরালা জুড়ে চরম বিশৃঙ্খলা কারোর নজর এড়ায়নি। পরে সেই সুপ্রিম রায় পুনর্বিবেচনার দাবি উঠলে গত সপ্তাহেই প্রাক্তন প্রধান বিচারপরি রঞ্জন গগৈ-এর নেতৃত্বাধীন ডিভিশন বেঞ্চ এই মামলার নিষ্পত্তি করতে পারেনি। বরং মামলাটিকে অমীমাংসিত অবস্থায় সাত সদস্যের সাংবিধানিক বেঞ্চে পাঠানো হয়েছে। এমতাবস্থায় আইয়াপ্পার মন্দিরে ওই নির্দিষ্ট বয়সী মহিলাদের প্রবেশ এখনও প্রশ্নের মুখে। কেউ যদি প্রবেশের চেষ্টা করেন তবে তাঁকে প্রয়োজনীয় নিরাপত্তা পুলিশ (Kerala police) দিতে পারবে না।

সংবাদ সংস্থা এএনআই-এর রিপোর্টানুসারে জানা গিয়েছে, বছর বারোর এক নাবালিকা তার পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে এদিন শবরিমালায় প্রবেশের চেষ্টা করেছিল। সঙ্গে বয়সের প্রমাণপত্র থাকা সত্ত্বেও ওই নাবালিকা এদিন তার বাবা ও অন্যান্য আত্মীয়দের সঙ্গে আইয়াপ্পা দর্শনে (Lord Ayyappa) যাওয়ার জন্য চড়াই ভাঙার অনুমতি পায়নি। আরও পড়ুন-Rajya Sabha Marshals' New Uniform Stokes Row: সেনানির পোশাকে রাজ্যসভার মার্শলরা, এই ঘটনাকে বেআইনি বললেন কার্গিল যুদ্ধের সেনানায়ক জেনারেল বেদ প্রকাশ মালিক

অন্যদিকে গত সপ্তাহেই এ মরশুমের মতো আইয়াপ্পার মন্দিরের দ্বার খোলা হয়েছে ভক্তদের জন্য। এর মধ্যেই ১০ জন মহিলা ভক্তকে আইয়াপ্পা দর্শনের আগেই ফিরিয়ে দিয়েছে নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা পুলিশের দলটি। পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, ঋতুমতী মহিলার যেন আইয়াপ্পা দর্শনের ইচ্ছে মনে রেখেই বেসক্যাম্প পাম্বা থেকে নিচে নেমে যান, কেননা মহিলা সমাজকর্মীদরে জন্য সরকার কোনও রকম পুলিশি নিরাপত্তার বন্দোবস্ত করতে নারাজ।