Rajya Sabha Marshals' New Uniform Stokes Row:  সেনানির পোশাকে রাজ্যসভার মার্শলরা, এই ঘটনাকে বেআইনি বললেন কার্গিল যুদ্ধের সেনানায়ক জেনারেল বেদ প্রকাশ মালিক
রাজ্যসভার মার্শালের টুপি (Photo Credit: Twitter)

নতুন দিল্লি, ১৯ নভেম্বর: সংসদের শীতকালীন অধিবেশন শুরু হতে না হতেই গোলযোগের আখড়া হয়ে উঠেছে। সোমবার রাজ্যসভার ২৫০-তম অধিবেশন (historic 250th session of Rajya Sabha) ছিল। এই ঐতিহাসিক দিনের উদযাপনকে রাজ্যসভার মার্শালদের (Marshals) পোশাকের পরিবর্তন করা হয়েছে। চিরাচরিত পোশাকের বদলে এদিন মার্শালরা সেনানির পোশাকে ছিলেন। এমনিতে বন্ধ গলা কুর্তা ও মাথায় এক বিশেষ ধরনের টুপিই হল মার্শালদের রাজ্যসভার পোশাক। সোমবার তার বদলে মার্শালরা পরেছিলেন নেভি ব্লু রঙের সেনা ইউনিফর্ম, ব্যাজ। এই ছবি প্রকাশ্যে আসতেই শুরু হয়েছে প্রতিবাদ। বিষয়টি নিয়ে মুখ খুলেছেন প্রাক্তন সেনা প্রধান জেনারেল বেদ প্রকাশ মালিক (General Ved Prakash Malik)। যিনি নিজে কার্গিল যুদ্ধে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন। এছাড়াও বহু প্রাক্তন সেনানায়করা মার্শালদের এহেন পোশাকের বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন।

জেনারেল বেদ প্রকাশ মালিক বলেন, “মার্শালদের চিরাচরিত পোশাক ত্যাগ করে এই সেনানির পোশাক পরিধান বেআইনি ও নিরাপত্তায় হানিকর এবিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই। বিষয়টি নিয়ে যাতে সত্ত্বর পদক্ষেপ করা হয় সেজন্য সরকারকে অনুরোধও করেছেন তিনি। সাধারণ মানুষ যদি সেনার পোশাক নকল করে ও পরে তাহলে তা বেআইনি। আমি আশা করছি রাজ্যসভার অধ্যক্ষ থেকে শুরু করে মাননীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং বিষয়টি দেখবেন।” জেনারেল বেদ প্রকাশ মািকের পাশাপাশি আর এক জন প্রাক্তন সেনা কর্তা জেনারেল ভিকে সিং-ও এই পোশাক পদলের ঘোরতর সমালোচনা করেছেন। আরও পড়ুন-Maharashtra Deadlock: চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে সময় চাই, সোনিয়া গান্ধীর সঙ্গে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের বললেন শরদ পাওয়ার

এদিকে সোমবারের মতোই মঙ্গলবার দ্বিতীয় দিনেও উত্তপ্ত রাজ্যসভা। স্লোগান-বিক্ষোভের জেরে  শুরুর কিছুক্ষণের মধ্যেই দুপুর দুটো পর্যন্ত রাজ্যসভার অধিবেশন মুলতুবি করে দেন চেয়ারম্যান বেঙ্কাইয়া নায়ডু। কিন্তু চেয়ারম্যানের এই সিদ্ধান্ত নিয়েই প্রশ্ন তুলেছে বিরোধীরা। তাঁদের অভিযোগ, এমন পরিস্থিতি তৈরি হয়নি, যাতে অধিবেশন মুলতুবি করে দিতে হয়। আসলে সরকার প্রশ্ন থেকে পালাতেই এই পন্থা নিয়েছে। তৃণমূল সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েন বিবৃতি দিয়ে বলেছেন, ‘‘বিরোধী শিবিরের এক জন সাংসদও ওয়েলে নেমে বিক্ষোভ দেখাননি। তবু দু’টো পর্যন্ত মুলতুবি করে দেওয়া হল অধিবেশন।