Bharat Bachao Rally: ‘আমি রাহুল সাভারকর নই, ক্ষমা চাইব না'...রেপ ইন ইন্ডিয়া বিতর্কে সাফ জানালেন রাহুল গান্ধি
রাহুল গান্ধি (Photo Credits: ANI)

নতুন দিল্লি, ১৪ ডিসেম্বর: সংসদের শীতকালীন অধিবেশন (Winter Session) শেষ হয়ে গিয়েছে গতকাল। তবু বিতর্ক যেন পিছু ছাড়ছে না রাহুল গান্ধির (Rahul Gandhi)। 'মেক ইন ইন্ডিয়া'র (Make In India) পরিবর্তে 'রেপ ইন ইন্ডিয়া (Rape In India)' মন্তব্য নিয়ে দেশজোড়া বিতর্ক যেন তাঁকে তাড়া করে বেড়াচ্ছে। এমনকী তাঁকে ক্ষমা চাওয়ার হুঁশিয়ারিও দেওয়া হয়েছে। তবে শনিবার তিনি সাফ জানিয়ে দিলেন ক্ষমা তিনি চাইবেন না। নতুন দিল্লির রামলীলা ময়দানে এদিন ভারত বাঁচাও র‍্যালির মঞ্চ থেকে রাগা স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন ক্ষমা তিনি চাইবেন না।

এদিন প্রকাশ্যে মঞ্চ থেকে তিনি জানিয়ে দেন, "আমি রাহুল সাভারকর নই, ক্ষমা চাইব না।" তিনি আরও বলেন, 'আমার নাম রাহুল গান্ধি। রাহুল সাভারকর নয়। সত্যি বলার জন্য আমি বা কোনও কংগ্রেসকর্মী ক্ষমা চাইবে না।' ক্ষমা প্রার্থনা তো দুরস্ত দেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করার জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Narendra Modi) ও তাঁর সহকারী অমিত শাহকে (Amit Shah) ক্ষমা চাইতে হবে। এমন কথাও বলতে শোনা যায় প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতিকে। কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে সনিয়া তনয়ের তোপ, 'দেশের শত্রুরা নয়, প্রধানমন্ত্রী নিজেই অর্থনীতিকে ধ্বংস করেছেন। উনি আবার নিজেকে দেশভক্ত বলেন!' সংসদে অনুপস্থিত থাকলেও পরে সাংবাদিক বৈঠকে রাহুল স্পষ্ট জানিয়ে দেন, ‘ক্ষমা চাওয়ার প্রশ্নই ওঠে না।’ আরও পড়ুন: Rahul Gandhi: ইটের বদলে পাটকেল রাহুলের, দিল্লিকে ‘রেপ রাজধানী’ বলায় নরেন্দ্র মোদিকে আগে ক্ষমা চাইতে হবে(দেখুন ভিডিও)

প্রসঙ্গত, ঝাড়খণ্ডে বিধানসভা নির্বাচনের প্রচারে গিয়ে রাহুল বলেছিলেন, 'প্রধানমন্ত্রী মেক ইন ইন্ডিয়ার কথা বলেছিলেন। ভাবা হয়েছিল কাগজ খুললেই রাজ্যে রাজ্যে মেক ইন ইন্ডিয়া দেখবেন। কিন্তু তার বদলে দেখা যায়, রেপ ইন ইন্ডিয়ার খবর।' শুক্রবার সংসদের শীতকালীন অধিবেশনের শেষদিনে রাগার এই মন্তব্যকেই হাতিয়ার করে সংসদের দুই কক্ষেই তেড়েফুঁড়ে ওঠে বিজেপি (BJP)। কেন্দ্রীয় নারী কল্যাণমন্ত্রী স্মৃতি ইরানির নেতৃত্বে 'রাহুল গান্ধি ক্ষমা চান' স্লোগান তোলেন দেবশ্রী চৌধুরী, লকেট চ্যাটার্জি, প্রজ্ঞা সিংয়ের মতো গেরুয়া দলের মহিলা সাংসদরা। তাঁদের প্রশ্ন, 'গান্ধি পরিবারের একজন ছেলে এমন জঘন্য মন্তব্য করেছেন। তিনি কি দেশের সব পুরুষকেই ধর্ষক মনে করেন। ক্ষমা চাইতে হবে রাহুল গান্ধিকে।'