Aryan Khan Drug Case: ''ফাঁসানো হয়েছে শাহরুখ পুত্রকে, প্রমোদতরী থেকে উদ্ধার হয়নি মাদক''
Shahrukh Khan, Aryan Khan (Photo Credit: File Photo)

মুম্বই, ৬ অক্টোবর: গোয়াগামী (Goa) প্রমোদতরী থেকে গ্রেফতার করা হয় শাহরুখ (Shah Rukh Khan) পুত্র আরিয়ান খানকে (Aryan Khan)৷ আরিয়ানের খানের গ্রেফতারির পর গোটা দেশ জুড়ে জোর শোরগোল শুরু হয়েছে৷ আরিয়ানের গ্রেফতারির পর বিষয়টি নিয়ে যখন নেটিজেনরা দুভাগে ভাগ হয়ে গিয়েছেন, সেই সময় একের পর এক বিস্ফোরক মন্তব্য করছেন মহারাষ্ট্রের মন্ত্রী নবাব মালিক (Nawab Malik)৷

মহারাষ্ট্রের (Maharashtra) মন্ত্রী নবাব মালিক অভিযোগ করেন, আরিয়ান খান সহ ৮ জনকে গ্রেফতারির পর মাদক (Drug) উদ্ধার করা হয়েছে বলে যে দাবি করা হয়, তা ভুয়ো৷ গোয়াগামী ওই প্রমোদতরী থেকে কোনও মাদক উদ্ধার করা হয়নি বলে দাবি নবাব মালিকের৷ পাশাপাশি আরিয়ান খানকে 'ফাঁসানো' হয়েছে বলেও দাবি করেন নবাব মালিক৷

আরও পড়ুন:  Aryan Khan Drug Case: শাহরুখ তনয় আরিয়ানের গ্রেফতারি 'জালিয়াতি', বিস্ফোরক দাবি মহারাষ্ট্রের মন্ত্রীর

নবাব মালিকের দাবি, গত ৩৬ বছর ধরে কাজ মাদক চক্রের পর্দা ফাঁসে কাজ করছে এনসিবি৷ তাদের কাজ নিয়ে দেশের মানুষ সন্তুষ্ট৷ বহু দেশীয় ও আন্তর্জাতিক মাদক চক্রের পর্দা ফাঁস হয়েছে এনসিবির হাত ধরে৷ তবে বর্তমানে যা হচ্ছে, তা নিয়ে তিনি সন্দেহ প্রকাশ করেন৷ নবাব মালিকের দাবি, গোয়াগামী প্রমোদতরীতে যখন এনসিবি অভিযান চালায়, সেই সময় গোয়েন্দা আধিকারিকদের সঙ্গে ছিল বিজেপি৷ গেরুয়া শিবিরের অঙ্গুলিহেলনেই আরিয়ানকে নিশানা করা হয়েছে বলে দাবি নবাব মালিকের৷

কে পি গোসাভি, মনীষ ভানুশালী বলে যাঁদের এনসিবি (NCB) অফিসারদের সঙ্গে দেখা গিয়েছে, তাঁরা আদতে বিজেপি কর্মী৷ তিনি বলেন, মণীশ ভানুশালী বলে যে ব্যক্তি আরিয়ানের বন্ধু আরবাজ শেঠ মার্চেন্টকে নিয়ে এনসিবি অফিসে আসেন, তিনি  বিজেপির সহসভাপতি৷