HIV Outbreak: পাকিস্তানে ৫০০জন মানুষের দেহে ছড়াল AIDS-এর ভাইরাস
পাকিস্তানে ছড়াল এডস (প্রতীকী ছবি। | (Photo Credits: Getty Images)

ইসলামাবাদ, ১৭ মে:  দক্ষিণ পাকিস্তানের এক গ্রামে প্রায় ৫০০জন মানুষের দেহে ছড়াল AIDS-এর ভাইরাস। যাদের মধ্যে আছে আবার অধিকাংশই শিশু। এক মেডিক্যাল ক্যাম্পে ভ্যাকসিন ও নানা ধরনের ইনজেকশন থেকে তাদের শরীরে HIV-র ভাইরাস ছড়িয়েছে বলে খবর। জানা গিয়েছে স্থানীয় এক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে HIV-সংক্রামিত ইনজেকশনের সিরিঞ্জ ব্যবহারের ফলে এই মহামারীর ঘটনা ঘটেছে। আশঙ্কা করা হচ্ছে আরও বেশ কয়েকজনের দেহে AIDS-এর ভাইরাস মিলতে পারে। এখনও পর্যন্ত ৫১০ জনের দেহে AIDS-এর ভাইরাস মিলেছে, যাদের মধ্যে ৪০০জন শিশু।

এই মারাত্মক ঘটনাটি ঘটেছে সিন্ধ প্রদেশের লারকানা অঞ্চলের ওয়াসো গ্রামে। স্থানীয় প্রশাসনের উদ্যোগে সেই গ্রামে একটি স্বাস্থ্য পরীক্ষা শিবিরের ব্যবস্থা করেছিল। গ্রামবাসীরা দলে দলে নিজেদের স্বাস্থ্যপরীক্ষার জন্য এই স্বাস্থ্যকেন্দ্রে এসেছিলেন। সেই হেল্থ ক্যাম্পে ভ্যাকসিন সহ বেশ কিছু কারণে ইনজেকশন দেওয়া হয়। কিন্তু ইনজেকশনের সিরিঞ্জেই ছিল HIV ভাইরাস। বেশ কয়েকজন মানুষের অসুস্থতার পর তাদের পরীক্ষা করে জানা যায় তারা AIDS-এ আক্রান্ত। প্রতি ঘণ্টায় গড়ে ১২জন মানুষের দেহে HIV ভাইরাস মেলে।

অবাক করা কথা হল, এই কাণ্ডের জন্য পুলিশ যাকে সন্দেহ করে গ্রেফতার করেছে, তাঁর দেহেও HIV ভাইরাস মিলেছে। এবং তিনি এই কাণ্ডে নিজেকে নিরাপরাধ বলে দাবি করেছেন। সিন্ধ প্রদেশের এক স্বাস্থ্যকর্তা জানান লারকানা অঞ্চলে এখনও পর্যন্ত ১৩,৮০০ জন মানুষকে পরীক্ষার পর ৫০০ জনের দেহে AIDS-এর ভাইরাস মিলেছে। তাদের মধ্যে ৪১০জন শিশু ও ১০০জন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষ আছে। স্থানীয় মিডিয়ায় প্রকাশ, আক্রান্তদের চিকিত্॥সার বিষয়ে কোনও উদ্যোগই চোখে পড়ছে না। প্রসঙ্গত, এই অঞ্চলেই জন্ম দেশের দুই প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী জুলফিকার আলি ভুট্টো ও তাদের কন্যা বেনাজির ভুট্টোর।