ডোনাল্ড ট্রাম্পের মুখে ফের কাশ্মীর নিয়ে ভারত-পাকিস্তান মধ্যস্থতার কথা
তিন রাষ্ট্রপ্রধান: নরেন্দ্র মোদি, ডোনাল্ড ট্রাম্প, ইমরান খান। (Photo Credits: PTI)

নিউ ইয়র্ক, ২৪ সেপ্টেম্বর: 'হাউডি মোদি'-তে যোগদান করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির প্রশংসা কুড়িয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। 'অব কী বার ট্রাম্প সরকার' বলে মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডোনাল্ড ট্রাম্পকে সরাসরি সমর্থন জানিয়েছেন মোদি। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পও মোদিকে বড় সার্টিফিকেট দেন। মোদিকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে ভালো বন্ধু বলে উল্লেখ করেন ট্রাম্প। মোদি ভারতের জন্য বেশ কাজ করছেন বলে ট্রাম্প জানান। কিন্তু বন্ধুত্বের সেই রেশ কাটল। ট্রাম্পের মুখে ফের কাশ্মীর ইস্যুতে ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে মধ্যস্থতার কথা। ক মাস আগেই কাশ্মীর নিয়ে ট্রাম্পের মধ্যস্থতা নিয়ে বেশ অস্বস্তি হয়েছিল। এবার নিয়ে মোট তৃতীয়বার কাশ্মীর নিয়ে মধ্যস্থতার কথা শোনা গেল ট্রাম্পের গলায়।

ট্রাম্প দাবি করেছিলেন, মোদি তাঁকে কাশ্মীর ইস্যুতে মধ্যস্থতা করতে অনুরোধ করেছিলেন। কিন্তু ভারত সরকার ট্রাম্পের এই দাবি পুরোপুরি উড়িয়ে দিয়েছিল। ইমরান খানের সঙ্গে বৈঠকের পরই মধ্যস্থতার সুর ধরা পড়ে মার্কিন প্রেসিডেন্টের গলায়।  আরও পড়ুন-নির্বাচন কমিশনার অশোক লাভাসার স্ত্রীকে নোটিস আয়কর দপ্তরের

রবিবার হাউডি মোদি-তে যোগ দেওয়ার পর, কাল সোমবার পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে বৈঠক করেন ট্রাম্প। ওই বৈঠকের পর নিউ ইয়র্কে ইমরান খানকে পাশে বসিয়ে সাংবাদিক সম্মেলনে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, 'কাশ্মীর বেশ কঠিন একটা বিষয়। দীর্ঘদিন ধরে দু দেশের মধ্যে কাশ্মীর নিয়ে সমস্যা চলছে। দু পক্ষ রাজি থাকলে এই বিষয় নিয়ে আমি মধ্যস্থতা করতে প্রস্তুত। তবে এতে দুপক্ষকেই রাজী হতে হবে।' ইমরান খানকে তিনি বিশ্বাস করেন বলার পর ট্রাম্প বললেন, কাশ্মীর নিয়ে ভারত-পাকিস্তান দু পক্ষ রাজি থাকলে মধ্যস্থতা করতেই পারি।

কাশ্মীর ভারতের অভ্যন্তরিন বিষয় বলে ট্রাম্পের মধ্যস্থতার প্রয়োজন নেই বলে নয়া দিল্লি আগে জানিয়েছিল। ব্রাজিলে জি ৭ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী মোদী মার্কিন প্রেসিডেন্টকে জানিয়েই দিয়েছেন, কাশ্মীর নিয়ে কোনও বিদেশি রাষ্ট্রের কষ্ট করার প্রয়োজন নেই।