WBJEE 2019 Result: জয়েন্ট এন্ট্রান্সের ফলাফল ঘোষিত, ফল জানুন  www.wbjeeb.in-এ, প্রথম হলেন সোহম মিস্ত্রি
প্রতীকী ছবি(Photo Credit: Facebook)

কলকাতা, ২০জুন: রাজ্যে এবছরের জয়েন্ট এন্ট্রান্সের (West Bengal Joint Entrance Examination) ফল প্রকাশিত হল বৃহস্পতিবার। উচ্চমাধ্যমিকের রেকর্ডকে অক্ষুন্ন রেখে জয়েন্টেও জেলার জয় জয়কার। এবছর জয়েন্টে প্রথম হয়েছেন দুর্গাপুরের হেমশীলা মডেল হাইস্কুলের সোহম মিস্ত্রি (Soham Mistry) । দ্বিতীয় হয়েছেন সাউথ পয়েন্ট স্কুলের তমোজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়। তৃতীয় স্থানে সেই হেমশীলা মডেল হাইস্কুলেরই আর এক কৃতী ছাত্র, নাম কৌস্তভ সেন। চতুর্থ হয়েছেন সাউথ পয়েন্ট স্কুলের ছাত্র অঙ্গীকার ঘোষাল। পঞ্চম স্থানাধিকারী অর্ক দাস সোনারপুরের সারদা বিদ্যাপীঠের ছাত্র। রুবিপার্ক দিল্লি পাবলিক স্কুলের ছাত্র স্নেহিন সেন ষষ্ঠ স্থান অধিকার করেছেন। আরও পড়ুন-WBJEE 2019 Result: জয়েন্ট এন্ট্রাসের ফলাফল প্রকাশ আজ, www.wbjeeb.in-এর মাধ্যমে দুপুর ২টো থেকে জানা যাবে ফল

সপ্তমেও জেলাতেই সাফল্য, বার্নপুর রিভারসাইটস স্কুলের ছাত্র বিনীত রাজ সপ্তম হয়েছেন। অষ্টম স্থানে রয়েছে রিশভ আগরওয়াল। পূর্বাঞ্চল বিদ্যামন্দির সল্টলেকের ছাত্র রিশভ। নবম স্থানে সুধীর মেমোরিয়াল ইনস্টিটিউশনের ছাত্র অভিনব দত্ত। দশম স্থান অধিকার করেছে দুর্গাপুরের হেমশীলা মডেল স্কুলের ছাত্র শুভজ্যোতি ঘোষ। এবারের জয়েন্টের প্রবেশিকার ফলে জেলা কলকাতার মালা গাঁথা হল। ক্রমান্বয়ে ব়্যাংক করা পড়ুয়ারাকেউ জেলার স্কুলের ছাত্র কেউ বা কলকাতার। এবার নজর কাড়া সাফল্যের মুকুট দুর্গাপুরের হেমশীলা মডেল স্কুলেরই প্রাপ্য। প্রথম, তৃতীয় ও দশম স্থানাধিকারী ওই স্কুলেরই ছাত্র। এযেন শুরু শেষের মালিকানা স্বেচ্ছায় বহন করার উপাখ্যান। সমস্ত সুযোগ সুবিধা পেয়েও কলকাতার পড়ুয়ারা মেধাতালিকার শীর্ষে থাকতে পারছে না, তবে এবারে দ্বিতীয় হয়ে সেই বদনাম খানিকটা ঘোচালেন সাউথ পয়েন্ট স্কুলের তমোজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে যে যাই বলুক না কেন জেলার পড়ুয়াদের এই ধারাবাহিক উত্থান কিন্তু শুভ সময়ের ইঙ্গিতবাহী।

ফিরে আসি জয়েন্টের ফল প্রসঙ্গে, www.wbjeeb.nic.in এবং www.wbjeeb.in –এই দু’টি ওয়েবসাইট থেকে র‌্যাংক কার্ড ডাউনলোড করা যাবে। পড়ুয়ারা এখান থেকেই নিজেদের ফলাফল জেনে নিতে পারবেন। চলতি বছরে পশ্চিমবঙ্গ, ত্রিপুরা, অসমের ৩০২টি কেন্দ্রে জয়েন্টের প্রবেশিকা পরীক্ষা হয়েছিল গত ২৮ মে। ওয়েস্ট বেঙ্গল জয়েন্ট এন্ট্রান্স এগজামিনেশন বোর্ডের তরফে এই  পরীক্ষা নেওয়া হয়। এরপর ঠিক ২৪ দিনের মাথায় ফল প্রকাশ করল জয়েন্ট এন্ট্রান্স বোর্ড।