Durga Puja Guidelines: দুর্গাপুজো নিয়ে একাধিক নির্দেশিকা মমতা ব্যানার্জির, পুজো ক্লাবগুলিকে দেওয়া হবে ৫০ হাজার টাকা করে অনুদান
মমতা ব্যানার্জি (Photo Credit: Facebook/Mamata Banerjee)

দুর্গাপুজো (Durga Puja 2020) নিয়ে বাম্পার ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির (Mamata Banerjee)। আজ তিনি নেতাজি ইনডোরে পুজো সমন্বয় বৈঠকে জানান, এবার বাংলায় ৩৭,০০০ পুজো হচ্ছে। পুজো প্যান্ডেলের চারধার খোলা রাখতে হবে। প্যান্ডেলে ঢোকার সময় মাস্ক ও স্যানিটাইজার ব্যবহার আবশ্যিক।

ভলান্টিয়ারদের ফেস শিল্ড দেওয়ার কথা জানান। বেশি সংখ্যক স্বেচ্ছাসেবক রাখার কথা বলেন। পুজোর জন্য ৫০% ছাড় দেবে সিইএসসি। পুজোয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান করতে নিষেধ করেন। এবছর হবে না পুজো কার্নিভাল। আরও পড়ুন, বোতল ভরা জল বেচেই চিনের ১ নম্বর ধনী, জ্যাক মা-কে টপকে শীর্ষে ঝং সানসান

পুজো কমিটিগুলিকে প্রতিবছর ১০ হাজার টাকা করে অনুদান দিত রাজ্য সরকার। এবার সেটাকেই পাঁচ গুণ বাড়িয়ে দেওয়া হল। বৃহস্পতিবার বৈঠকে এ কথা ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। সেই সঙ্গে ফায়ার ব্রিগেড, কর্পোরেশনকেও কোনও টাকা দিতে হবে না কমিটিগুলিকে। সিইএসসি ও রাজ্য বিদ্যুৎপর্ষদের ক্ষেত্রেও ৫০ শতাংশ ফ্রি বলে জানান মুখ্যমন্ত্রী।

মুখ্যমন্ত্রীর বলেন, “আমাদের টাকা নেই পয়সা নেই সেটা ঠিক … তবে পুজো কমিটিগুলো আমি জানি খুব প্রবলেমে রয়েছে। আমাদের একটা স্বল্প দান তো আমরা দিই। দান নয় ভালবাসা। এবার যেহেতু আপনাদের সমস্যা একটু বেশি রয়েছে। এ বার রাজ্য সরকার আপনাদের ৫০ হাজার টাকা করে দেবে প্রত্যেকটা পুজো কমিটিকে”।

এবছরের দুর্গাপুজো নিয়ে একাধিক সংশয় ছিল। মুখ্যমন্ত্রীর এই বৈঠকেরই অপেক্ষা করছিল ক্লাব কমিটিগুলি। নিউ নরমালে অবশেষে হচ্ছে পুজো। তৃতীয়ার দিন থেকে খুলে দেওয়া হবে প্যান্ডেলগুলি। অষ্টমীর অঞ্জলি ও সিঁদুরখেলাও করতে হবে বিধি মেনে।