Kolkata: অনুমতি ছাড়া অনুব্রত মণ্ডলের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া যাবে না, নির্দেশ কলকাতা হাইকোর্টের
Anubrata Mondal (Photo Credits: Facebook)

কলকাতা, ৩ ফেব্রুয়ারি: তাদের অনুমতি ছাড়া তৃণমূলের বীরভূম জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলের (Anubrata Mondal) বিরুদ্ধে ৪ সপ্তাহ কোনও ব্যবস্থা নেওয়া যাবে না। আজ এই নির্দেশ দিয়েছে কলকাতা হাইকোর্ট (Calcutta High Court)। তবে, আদালত জানিয়ে দিয়েছে যে সিবিআই তলব করলে অনুব্রতকে দুর্গাপুরে সিবিআই (CBI)-র অফিসে হাজির হতে হবে। অনুব্রতর বিরুদ্ধে তদন্ত জারি রাখতেও পারবে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাটি। ভোট-পরবর্তী হিংসার মামলায় জিজ্ঞাসাবাদ করার জন্য অনুব্রতকে তলব করেছিল সিবিআই। সিবিআই নোটিশের বিরুদ্ধে আবেদন করেছিলেন বীরভূমের তৃণমূল জেলা সভাপতি।

আজ বিচারপতি রাজাশেখর মান্থার সিঙ্গল বেঞ্চে মামলাটি ওঠে। শুনানিতে অনুব্রতর আইনজীবী সন্দীপন গঙ্গোপাধ্যায় বলেন, তাঁর মক্কেলের হাই ব্লাড সুগার, কিডনি এবং সিওপিডি-র সমস্যা আছে। সিবিআই-র নোটিশ পাওয়ার পরই তিনি স্বাস্থ্য সম্পর্কে সংস্থাকে অনুরোধ করেছিলেন। কিন্তু তার পরেও বোলপুরের বাইরে প্রায় ৫৪ কিমি দূরে দুর্গাপুরে ডেকে পাঠানো হয় তাঁকে। অনুব্রতর আইনজীবী দাবি করেন, সাক্ষী হিসেবে ডাকা হলেও তাঁকে গ্রেফতার করা হতে পারে। কারণ ১৫ জানুয়ারি ১৬০ ধারায় নোটিশ পাঠানো হয়েছে। উত্তর দেওয়ার পরেও ফের ৩১ জানুয়ারি নোটিশ পাঠায় সিবিআই। তাই রক্ষাকবচ দিলে অনুব্রত দুর্গাপুরে গিয়ে তদন্ত সংস্থার কাছে হাজিরা দিতে রাজি তিনি। আরও পড়ুন: WB Municipal Elections 2022: ২৭ ফেব্রুয়ারি বাকি ১০৮টি পুরসভার ভোটগ্রহণ

সব পক্ষের প্রাথমিক বক্তব্য শুনে আদালত অনুব্রতর বিরুদ্ধে ৪ সপ্তাহ কোনও পদক্ষেপ না নিতে নির্দেশ দেন। অর্থাৎ, চাইলেও অনুব্রতকে গ্রেফতার করতে পারবে না। তার জন্য আদালতের অনুমতির প্রয়োজন হবে।