Ravindra Jadeja Catch Video: রবীন্দ্র জাদেজার দুর্দান্ত ক্যাচে ফিরলেন নীল ওয়্যাগনার, প্রশংসা নেটিজেনদের
রবীন্দ্র জাদেজার দুর্দান্ত ক্যাচ (Photo Credits: @MickRandallHS /Twitter)

ক্রাইস্টচার্চ টেস্টে (ndia vs New Zealand 2nd Test 2020) লড়াইয়ে ফিরল ভারত। মহম্মদ শামি (Mohammed Shami) ও যশপ্রীত বুমরা (Jasprit Bumrah) লড়াইয় ফেরান বিরাট কোহলিদের। শামি ৮১ রানে নিলেন চার উইকেট। ৬২ রানে নিলেন তিন উইকেট নিলেন বুমরা। শামি-বুমরার দাপটে ২৩৫ রানে শেষ হল নিউজিল্যান্ডের প্রথম ইনিংস। ফলে, সাত রানের লিড পেল টিম ইন্ডিয়া। লিডের চেয়েও অবশ্য বেশি এল আত্মবিশ্বাস। হ্যাগলি ওভালে দ্বিতীয় টেস্টে প্রথম দিনে ২৪২ রানে থেমে গিয়েছিল ভারতের ইনিংস। রবিবার সকালে দ্বিতীয় দিনের শুরুতে বিনা উইকেটে ৬৩ নিয়ে শুরু করেছিল নিউজিল্যান্ড। তবে শামি ও বুমরার দাপটে সকালের দু’ঘন্টায় নিউজিল্যান্ডের পাঁচ উইকেট পড়ে যায়। পর পর আউট হন টম ব্লান্ডেল (৩০), অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন (৩), রস টেলর (১৫), টম লাথাম (৫২), হেনরি নিকলস (১৪)। শনিবার শেষ সেশনে ২৩ ওভার বল করেও উইকেট পাননি বোলাররা। এ দিন কিন্তু নিঁখুত নিশানায় তাঁরা বল করে গেলেন একটানা। লাঞ্চের সময় হাতে পাঁচ উইকেট নিয়ে ১৪২ তুলেছিল নিউজিল্যান্ড। কাইল জেমিসনের আক্রমণাত্মক ব্যাটিংয়ে সেটাই শেষ পর্যন্ত কমে দাঁড়াল সাত রানে। নিউজিল্যান্ডের প্রথম ইনিংস শেষ হল ২৩৫ রানে। শামি-বুমরা ছাড়া উইকেট পেলেন রবীন্দ্র জাদেজা (Ravindra Jadeja) (২-২২) ও উমেশ যাদব (১-৪৬)। উইকেট নেওয়া ছাড়াও নিলেন জাদেজা নিয়েছেন দুটি অনবদ্য ক্যাচ। এর মধ্যে নীল ওয়্যাগনারের (Neil Wagner) ক্যাচ রীতিমতো অবিশ্বাস্য। আর তারপরই নেটিজেনরা তাঁর প্রশংসায় পঞ্চমুখ।

রবীন্দ্র জাদেজা একজন খাঁটি অলরাউন্ডার। তিনি কেবল ব্যাট এবং বলে নয়, নিজের ফিল্ডিংয়ে মূল্যবান অবদান রাখেন। স্টাম্পে সরাসরি হিট হোক বা দুর্দান্ত ক্যাচ, জাদেজা সত্যিই ক্রিকেটে নতুন মাত্রা যুক্ত করে। এদিকে, ক্রাইস্টচার্চে দ্বিতীয় টেস্টের দ্বিতীয় দিনে জাদেজা নীল ওয়্যাগনারকে আউট করতে দুর্দান্ত ক্যাচ নিয়েছেন। মহম্মদ শামির বলে পুল শট খেলেছিলেন ওয়্যাগনার। জাদজা ছিলেন স্কয়্যার লেগে। সেখান থেকে পিছনে দৌঁড়ে কিছুটা হাওয়ায় লাফিয়েই বাঁ হাতি ধরে ফেললেন বল। আরও পড়ুন: MS Dhoni Turns Farmer: ক্রিকট ছেড়ে তরমুজের চাষ করছেন মহেন্দ্র সিং ধোনি!

সঙ্গে সঙ্গেই জাডেজার প্রশংসায় ভেসে যায় টুইটার। অনেক ফ্যান এই ক্যাচকে বছরের সেরা ক্যাচ হিসেবেও ব্যাখ্যা করেন। কেউ আবার এই যুগেরই সেরা ক্যাচও বলেন। এমনকী জাদেজার ক্যাচ ধরা দেখে ব্যাটসম্যান ওয়্যাগনারও হতবাক হয়ে তাকান। খেলার এই পর্যায়ে, ওয়্যাগনার কাইল জেমিসনের সঙ্গে নবম উইকেটে ৫১ রান যোগ করেছিলেন এবং ব্ল্যাকক্যাপরা প্রথম ইনিংসে লিড নেওয়ার চেষ্টা করেছিল। দ্বিতীয় টেস্টেই কেইল জেমিসন নিজেকে আবার প্রমান করেন। শেষ তিন উইকেটে নিউজিল্যান্ড ৮২ রান তোলে। তাঁর মধ্যে ৪৯ রান জেমিসনের। প্রথম ইনিংসে পাঁচ উইকেট নেওয়ার পর ব্যাট তাঁর এই রান তাঁর অল-রাউন্ড দক্ষতাকে চিনিয়ে দিল যা কিউইদেরকাজে লাগবে।