Panipuri ATM: ফুচকা ভেন্ডিং মেশিন! করোনাকালে একমাত্র ভরসা যোগাচ্ছে এই পানিপুরি এটিএম (দেখুন ভিডিও)
পানিপুরি এটিএম (Photo Credits: Twitter)

লকডাউনে রাস্তায় লাইন দিয়ে দাঁড়িয়ে ফুচকা খাওয়া কে না মিস করেছেন! তাই অপেক্ষা করতে না পেরে নিজেরাই বাড়িতে ফুচকা বানিয়ে ফেলেছেন নেটিজেনরা, তার ছবিও শেয়ার করেছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। কিন্তু পরিশ্রমের কাছে হার মেনেছেন অনেকেই। তাই তারা আবার পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার অপেক্ষায়। আর তা হলেই আগের মতো লাইনে দাঁড়িয়ে শালপাতার বাটি হাতে ফুচকা খাবার প্রতিযোগিতা শুরু হবে। কিন্তু প্রশ্ন থেকেই যায়, বাইরে দাঁড়িয়ে এইমুহূর্তে ফুচকাওয়ালার থেকে ফুচকা খাওয়া কতটা নিরাপদ। এইসব চিন্তাভাবনাকে উড়িয়ে দিতে বাজারে এসেছে 'ফুচকা ভেন্ডিং মেশিন'(Panipuri Vending Machine), বলা যেতে পারে ফুচকা এটিএমও (Panipuri ATM)।

বিশেষত, ফুচকাওয়ালারা হাত দিয়ে কুড়মুড়ে ফুচকা ভাঙেন, তারমধ্যে আলু ভরেন, তারপর তেঁতুল জলে ডুবিয়ে ক্রেতাদের পরিবেশন করেন। করোনাকালে এই পুরো পদ্ধতিতে হাইজিনের ঝুঁকি বেশ অনেকটা। এইমুহূর্তে তাই সমাধান হিসেবে দাঁড়াতে পারে এই ভেন্ডিং মেশিন। ঠিক কীভাবে কাজ করে এই মেশিন? আরও পড়ুন, লন্ডন থেকে কলকাতা বাসে! বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘতম বাস রুট, দেখুন ছবি

প্রথমে কত তাজকার ফুচকা খাবেন সেই অংকের পরিমাণটি লিখতে হবে মেশিনে, তারপর মেশিনের ভিতরে প্রবেশ করতে হবে টাকার নোট। নোট ঢোকার পর একে একে আসতে শুরু করবে কুড়মুড়ে, আলুর পুর ভরা ফুচকা। আপনি যদি জলভরা ফুচকা খান রয়েছে তার অপশনও। তাই নিউ নরমাল অথবা করোনা পরবর্তী সময়ে ফুচকাপ্রেমীদের দোকানমুখো করতে এই ব্যবস্থা সত্যিই অভিনব। তবে কবে শর তিলোত্তমায় এই মেশিন আসছে এখন তার অপেক্ষা।