Rose Day 2024: ভ্যালেন্টাইনস উইকের প্রথম দিন রোজ ডে, জেনে নিন এই দিনের বিশেষ কিছু গল্প

১৪ ফেব্রুয়ারি ভ্যালেন্টাইনস ডে (Valentine's Day) অথবা ভালোবাসা দিবস। তবে এর আগেই শুরু হয়ে যায় ভালোবাসার সপ্তাহ, অর্থাৎ ভ্যালেন্টাইনস উইক (Valentine's Week)। ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু ভ্যালেন্টাইন উইক, যার প্রথম দিন হল রোজ ডে (Rose Day)। রোজ ডে মানে গোলাপের দিন। অনুভূতি প্রকাশের প্রতীক হিসেবে বিবেচনা করা হয় গোলাপকে। গোলাপের প্রতিটি রং-এর মধ্যে দিয়ে প্রকাশ পায় আলাদা আলাদা অনুভূতি। কাউকে একটি নির্দিষ্ট রঙের গোলাপ দিয়ে ইঙ্গিতের মাধ্যমে নিজের অনুভূতি প্রকাশ করা যায়।

হরেক রকমের গোলাপে ভরে গেছে বাজার। বিভিন্ন রঙের গোলাপ একাকিত্ব মনেও ভালোবাসার আশা জাগায়। কিন্তু রোজ ডে শুধুমাত্র প্রেমিক প্রেমিকাদের জন্য দিন নয়, সবাই এই দিনটি উদযাপন করতে পারে। রোজ ডে উদযাপনের কারণ এবং উদযাপনের সঠিক পদ্ধতি জেনে আপনিও রোজ ডে পালন করতে পারেন। আসুন জেনে নেওয়া যাক রোজ ডে-এর ইতিহাস কি? কেন রোজ ডে থেকে শুরু হয় ভ্যালেন্টাইন উইক?

৭ ফেব্রুয়ারি থেকে ১৪ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত পালিত হয় ভ্যালেন্টাইন সপ্তাহ। রোজ ডে পালিত হয় ভ্যালেন্টাইন সপ্তাহের প্রথম দিন অর্থাৎ ৭ ফেব্রুয়ারি। এই দিন প্রেমিক-প্রেমিকা, জীবনসঙ্গী, বন্ধু বা বিশেষ কাউকে গোলাপ দিয়ে নিজেদের অনুভূতি প্রকাশ করে। গোলাপকে ভালোবাসার প্রতীক মনে করা হয়। গোলাপের বিভিন্ন রং বিভিন্ন আবেগ প্রকাশ করে। ভ্যালেন্টাইনস সপ্তাহ আপনাকে আপনার অনুভূতি প্রকাশ করার একটি সুযোগ দেয়। তাই রোজ ডে যেকোনও সম্পর্কের জন্য গুরুত্বপূর্ণ একটি দিন।

আপনি কাউকে ভালোবাসলে বা ভালোবাসার কথা বলতে চাইলে তাকে গোলাপ দিতে পারেন। এছাড়া কারো সঙ্গে বন্ধুত্ব করার জন্য বা কাউকে সম্মান করার জন্য বা সবকিছু ভুলে শত্রুর সঙ্গে হাত মেলাতে চাইলেও বিশেষ রঙের গোলাপ দিয়ে এই দিনটি উদযাপন করতে পারেন।

ভ্যালেন্টাইন সপ্তাহে রোজ ডে উদযাপনের দুটি বিশেষ গল্প রয়েছে। মোগল বেগম নূরজাহান লাল গোলাপ খুব পছন্দ করতেন। তাঁকে খুশি করার জন্য জাহাঙ্গীর প্রতিদিন তাজা গোলাপ নূরজাহানের প্রাসাদে পাঠাতেন। তাঁদের এই প্রেমের গল্প খুব বিখ্যাত। এছাড়াও একটি গল্প রয়েছে রানী ভিক্টোরিয়ার যুগের। তখনকার মানুষ তাদের অনুভূতি প্রকাশের জন্য একে অপরকে গোলাপ উপহার দিত। এই ঐতিহ্যের অধীনে, ভ্যালেন্টাইন সপ্তাহের একটি দিন রোজ ডে হিসাবে পালন করা হয়।