Kerala: মসজিদে বিয়ে হবে হিন্দু যুগলের, খরচ জোগাবে মুসলিম সংগঠন
বিয়ে/ প্রতীকী ছবি (Picture Credits: Wikimedia Commons)

কায়ামকুলাম, ৭ জানুয়ারি: দেশজুড়ে চলছে ধর্ম নিয়ে রাজনীতি। সম্প্রদায় বিভাজনের নিভে যাওয়া শিখা যেন আবার জ্বলে উঠেছে। কিন্তু খারাপের মধ্যেও কিছু ভালো হয়। তেমনই একটি খবর উঠে এসেছে কেরালার (Kerala) কায়ামকুলাম (Kayamkulam) জেলার গ্রাম থেকে। কেরালা থেকে এমন অনেক ঘটনা ঘটেছে যা আগে কোনওদিন ঘটেনি। এমন অনেক অস্বাভাবিক ঘটনাকে স্বাভাবিক করে দেখিয়েছে কেরালা।

নিউজপোল-র করা একটি খবর অনুযায়ী, কেরালার (Kerala) কায়ামকুলাম জেলায় ১৯ জানুয়ারি বিয়ে হবে চেরাভালি সম্প্রদায়ের অঞ্জু এবং কৃষ্ণপুরম এলাকার শরতের। সকাল সাড়ে ১১টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টার মধ্যে সম্পন্ন হবে বিবাহের কাজ। অঞ্জুর বাবা অশোকানের মৃত্যুর পর থেকে মা বিন্দুর সংসার চালানো কষ্টসাধ্য হয়ে পড়েছে। ফলে বিয়ের সমস্ত খরচ জোগানো অসম্ভব। এই অবস্থায় তাঁর পাশে দাঁড়িয়েছে কায়ামাকুলামের চেরাভালি মুসলিম জামাত কমিটি। জামাতের এক সদস্য বিয়ের খরচ জোগাবেন বলেও কথা দিয়েছেন এবং খবর অনুযায়ী, অন্যান্য সদস্যরাও বিন্দুর পাশে এসে দাঁড়িয়েছেন। জামাত কমিটির তরফ থেকেই ছাপানো হয় বিয়ের আমন্ত্রণ পত্র যা সোশ্যাল মিডিয়ায় আলোড়ন তুলেছে। আরও পড়ুন, 'পুরুষ পুলিশ আমার পেটে লাথি মেরেছে', একমাস পর জেল থেকে বেরিয়ে মুখ খুললেন সাদাফ জাফর

অর্থাভাবে বিয়ে দিতে পারছিলেন না বলে ভেঙে পড়েছিলেন বিন্দু। তখন তাঁর এক প্রতিবেশী তাঁকে পরামর্শ দেন সমস্যাটি জামাত কমিটিকে জানাতে। ধর্ম নিয়ে ভেদাভেদ না করে সাহসিকতার সঙ্গে জামাত কমিটিতে ঘটনাটি জানান। এর ফলে সাড়া দেন জামাত কমিটির সদস্যরাও। তারা খরচ দিতে রাজিও হয়ে যান।