বিফ স্যুপ খেয়ে ছবি পোস্ট করেছিলেন, এই অপরাধে কী হল যুবকের হাল?
প্রতীকী ছবি(File photo)

চেন্নাই, ১২ জুলাই:   বিফ স্যুপ খেয়ে ছবি পোস্ট করেছিলেন সোশ্যাল মিডিয়ায়, এই অপরাধে উত্তমমধ্যম পড়ল যুবকের পিঠে। শুধু পিঠেই খেলেন না, বাড়ি স্থাবর সম্পত্তির উপরেও পড়ল জনরোষ। আক্রান্তের নাম মহম্মদ ফায়জান। তিনি থাকেন তামিলনাড়ুর বরাভাচেরি গ্রামে। বেধড়ক মারধরের পর  আপাতত হাসপাতালই তাঁর ঠিকানা।  তামিলনাড়ুর নাগাপট্টিনাম জেলার বরাভাচেরি গ্রামে থাকেন মহম্মদ ফায়জ়ান।  সোশ্যাল মিডিয়ায় এহেন ছবি দেখেই স্থানীয়রা ফায়জানের উপরে খেপে যায়। তাঁর বাড়িতে চড়াও হয়ে ভাঙচুর চালায় উত্তেজিত জনতা। লোহার রড দিয়ে বেদম পেটানোও হয় তাঁকে। আরও  পড়ুন- সুখবর সুখবর মাত্র ১ দিনেই মিলছে পাসপোর্ট, কীভাবে জানেন?

জানা গিয়েছে, অপ্রীতিকর ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার সন্ধে সাতটা নাগাদ। ফায়জানের উপরে হামলার ঘটনায় অভিযুক্ত হিসেবে ২৮ বছরের দীনেশ কুমার, ২৯ বছরের আর. আগাথিয়ান, বছর ২৭-এর গণেশ কুমার, বছর ২৮-এর এম মোহনকুমারকে পুলিশ চিহ্নিতও করেছে। অভিযুক্তরা স্থানীয় দীনেশ ‘আম্মা মাক্কাল কাজহাগাম’ দলের সদস্য এবং স্থানীয় নেতা।  তারা কাঠ এবং লোহার রড দিয়ে যেভাবে পিটিয়েছে ফায়জ়ানকে, তাতে তাঁর বাঁ কাঁধ এবং কব্জিতে চোট গুরুতর।  আপাতত তাঁকে ভর্তি করা হয়েছে নাগাপট্টিনাম সরকারি হাসপাতালে।

স্থানীয় কিলভেলুর থানায় ওই চারজনের বিরুদ্ধে ১৫৩(এ) অর্থাৎ ধর্ম, জাতি, জন্মস্থান, বাসস্থান, ভাষা, ইত্যাদি ভিত্তিতে বিভিন্ন গোষ্ঠীর মধ্যে শত্রুতা বৃদ্ধি করা ,আপত্তিজনক কাজ করা, ৩০৭ অর্থাৎ হত্যার চেষ্টা, ৩২৪ অর্থাৎ বিপজ্জনক অস্ত্র দিয়ে আঘাত করা, ২৯৪ অর্থাৎ প্রকাশ্যে খারাপ, অশ্লীল শব্দ ব্যবহার করা সহ অনেকগুলো ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।  স্থানীয় লোকজন অভিযুক্তদের গ্রেপ্তারি ও শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।