প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি-র ফলোয়ার ৫ কোটি ছাড়ল, টুইট বিশ্বে মোদি-র আগে এখন শুধু এই দুই রাষ্ট্রনেতা
নরেন্দ্র মোদি। (Image Courtesy: PTI)

নয়া দিল্লি, ৯ সেপ্টেম্বর: ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনে তিনশোটিরও বেশি আসনে জিতে ফের দেশের ক্ষমতায় এসেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi)। গোটা দেশজুড়ে ঝড় তুলে দেশের প্রায় সব রাজ্যের বিরোধীদের পর্যদুস্ত করে জিতেছেন মোদি। আরও একবার ভোটে বড় জয়ের পর সোশ্যাল মিডিয়ায় বাড়ছে নরেন্দ্র মোদি-র ফলোয়ার সংখ্যা। মাইক্রোব্লগিং সাইট টুইটারে (Twitter) মোদি-র ফলোয়ার সংখ্যা ৫০ মিলিয়ন বা ৫ কোটি ছাড়িয়ে গেল। ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদি-র আগে বিশ্বনেতাদের আগে শুধু মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প (৬৪ মিলিয়ন), ও প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা (১০৮ মিলিয়ন)। গত বছর জুলাই থেকে এক বছরের মধ্যে টুইটারে মোদি-র ফলোয়ার বেড়েছে প্রায় সাত মিলিয়ন বা ৭০ লক্ষ।

দেশের বাকি রাজনীতিবিদদের থেকে বেশ কিছুটা আগেই টুইটারে আসেন ডিজিটাল ইন্ডিয়া-র স্বপ্ন দেখা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ২০০৯ গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী থাকার সময় মোদি টুইটারে যোগ দেন। দেশের প্রদানমন্ত্রী হওয়ার পর টুইটারে মোদির ফলোয়ার সংখ্যা প্রায় সাড়ে ৩ কোটি বেড়ে যায়। টুইটারের পাশাপাশি ফেসবুকে নরেন্দ্র মোদি-র অফিসিয়াল অ্যাকাউন্টে ৪.৮ কোটি ও ইনস্টাগ্রামে ২.৫ কোটি ফলোয়ার রয়েছে। টুইটারে তিন নম্বরে থাকলেও, ইনস্টাগ্রামে বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় নেতা মোদি। ইনস্টগ্রামে মোদি-র সবচেয়ে জনপ্রিয় পোস্ট সংসদে এক খুদের সঙ্গে সংসদে তাঁর সাক্ষাৎ। আরও পড়ুন-স্কুল ব্যাগ ছাড়াই স্কুলে পড়ুয়ারা

গত ২৩ জুলাই সংসদ ভবনে প্রধানমন্ত্রীর দফতরে কয়েকজন অতিথি তাঁর সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে আসেন, ছবিতে দেখা যাওয়া ওই শিশুটি সেই অতিথিদের সঙ্গেই ছিল। সেই ইনস্টা পোস্টে দেখা যায়, শিশুটি প্রধানমন্ত্রীর কোলে উঠে দারুণ খুশি, আর তার জন্যে প্রধানমন্ত্রীর ডেস্কে একটি চকোলেটও রাখা রয়েছে।

গত বছর গালাপ নামের এক সমীক্ষা সংস্থা ৫০টি দেশের রাষ্ট্রপ্রধানদের সোশ্যাল মিডিয়ায় জনপ্রিয়তা নিয়ে এক সমীক্ষা চালায়। যে তালিকায় চিন, রাশিয়া, ইজরায়েল, ব্রিটিশ রাষ্ট্রপ্রধানদের পিছনে ফেলে তৃতীয় স্থানে ছিলেন মোদি। এই সমীক্ষায় মোদি-র আগে ছিলেন শুধু জার্মান চ্যান্সেলার অ্যাঞ্জেলা মর্কেল ও ফরাসি প্রেসিডেন্ট এম্যানুয়েল ম্য়াকরন।