Tea Diplomacy:  বিক্ষোভরত সাংসদদের চায়ের অফার করে প্রধানমন্ত্রীর সুনজরে হরিবংশ সিং, চায়ের বদলে চাষিদের খাবার ফেরত চাইলেন সঞ্জয় সিং
মোদি ও বিক্ষোভরত ৮ সাংসদ Photo Credits: ANI & PTI)

নতুন দিল্লি, ২২ সেপ্টেম্বর: রাজ্যসভায় পাশ হয়ে যাওয়া দুই বিতর্কিত কৃষি বিলের বিরোধিতায় বিক্ষোভে শামিল হয়েছেন আট সাংসদ। এদিকে পার্লামেন্টের লনে বিক্ষোভরত সাসপেন্ডেড সাংসদদের সঙ্গে মঙ্গলবার সকালে দেখা করেন রাজ্যসভার ডেপুটি চেয়ারম্যান হরিবংশ সিং। তাঁদের চা অফার করেন তিনি। এদিকে একদিন আগে তাঁর বিরুদ্ধে সংসদে অনাস্থা আনেন এই ৮ সাংসদ। জানা গিয়েছে, হরিবংশ সিংয়ের “চা কূটনীতি”কে তীব্রভাবে প্রত্যাখান করেছেন বিক্ষোভরত সাংসদরা। এখানেই শেষ নয়, ডেপুটি চেয়ারম্যানকে তাঁরা “কৃষি বিরোধী”র তকমাও দিয়েছেন। এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই হইচই পড়েছে। এদিকে হরিবংশ সিংয়ের প্রশংসায় পঞ্চমুখ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Narendra Modi)। আরও পড়ুন-MPs' Overnight Protest: পার্লামেন্টের লনে ৮ সাংসদের জন্য এল গরমাগরম ইডলি, চা, খোলা আকাশরে নিচে কেমন কাটল ডেরেক ও'ব্রায়েনের রাত?

হরিবংশজি দয়ালু ও বড় মনের মানুষ, বলেন প্রধানমন্ত্রী

তিনি বলেছেন, “কয়েকদিন আগে যাঁরা তাঁকে আক্রমণ করেছেন, অপমান করেছেন। হরিবংশজি একজন দয়ালু হৃদয় বড় মনের মানুষ, তাই আক্রমণকারীদেরই তিনি চায়ের অফার করেছেন। সমগ্রভারতবাসীর সঙ্গে মিলে আমি হরিবংশজিকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।” প্রধানমন্ত্রীর এহেন টুইটের জবাব দিয়েছেন আম আদমি পার্টির সাংসদ সঞ্জয় সিং। তিনি টুইটে বলেছেন, “মোদিজি, আমরা আমাদের চায়ের জন্য লড়াই করছি না। আমরা আমাদের কৃষকদের কল্যাণে লড়াই করছি, যা আপনি কেড়ে নিয়েছেন। আপনার কাছে আমার বিনীত অনুরোধ, আপনাদের চা সমস্ত শ্রদ্ধার সঙ্গে ফিরিয়ে দিচ্ছি, দয়া করে আমার কৃষকদের খাবার ফিরিয়ে দিন।”

'শ্রদ্ধার সঙ্গে চা ফিরিয়ে দিচ্ছি, কৃষকদের মুখের খাবার ফেরত দিন'

উল্লেখ্য, বিতর্কিত কৃষি বিলকে কেন্দ্র করে তুঙ্গে উঠেছে সরকার বনাম বিরোধীদের লড়াই। রবিবার দু'টি কৃষি বিল পাশের মুহূর্তে রাজ্যসভা কক্ষে শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগে সোমবার সাসপেন্ড করা হয় আটজন বিরোধী সাংসদকে৷ সাসপেন্ড হওয়া সাংসদদের মধ্যে আছেন তৃণমূলের ডেরেক ও'ব্রায়েন ও দোলা সেন, কংগ্রেসের রাজীব সতভ, রিপুন ভোরা ও সৈয়দ নাসির হুসেন, সিপিএমের কে রাগেশ ও ইলামারাম করিম এবং আপ-এর সঞ্জয় সিং৷ চলতি বাদল অধিবেশনের শেষ পর্যন্ত বহাল থাকবে তাঁদের সাসপেনশন। সাসপেন্ডেড সাংসদরা পার্লামেন্টের লনেই রাত কাটিয়েছেন। গতকাল তাঁরা রাজ্যসভা ছাড়তে রাজি হননি। বরং বিক্ষোভে শামিল হয়েছেন। এদিক রাজ্যসভার অধিবেশন ৫ বার মুলতুবি হয়েছে।