Cyclone Michaung Update: শক্তি বাড়িয়ে ধেয়ে আসছে 'মিগজাউম', ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আছড়ে পড়বে অন্ধ্রপ্রদেশ-তামিলনাড়ুতে, ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে বঙ্গেও বৃষ্টি
প্রতীকী ছবি (Photo Credits: Pixabay)

Cyclone Michaung Update: বঙ্গোপসাগর এবং দক্ষিণ আন্দামান সাগরের উপর তৈরি হওয়া ঘূর্ণিঝড় 'মিগজাউম' (Michaung) ক্রমশ শক্তি বাড়িয়ে ধেয়ে আসছে। আগামী ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে আছড়ে পড়তে চলেছে দক্ষিণের দুই রাজ্য তামিলনাড়ু (Tamil Nadu) এবং অন্ধ্রপ্রদেশে (Andhra Pradesh)। ভারতের আবহাওয়া দফতরের তরফে উত্তর তামিলনাড়ু উপকূল অঞ্চলে আগামী ১২ ঘণ্টার জন্যে সতর্কতা জারি করা হয়েছে। মঙ্গলবার ৫ ডিসেম্বর ঘূর্ণিঝড় 'মিগজাউম' অন্ধ্রপ্রদেশের দক্ষিণে এবং তামিলনাড়ুর উত্তরে আছড়ে পড়তে চলেছে। যার প্রভাবে বাংলা এবং ওড়িশায় বৃষ্টি নামবে।

আরও পড়ুনঃ শনিবার রাতে জোড়া ভূমিকম্প ফিলিপিন্সে, বাড়ির দেওয়াল ধসে মৃত্যু ১ মহিলার, আহত ২

আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে বঙ্গোপসাগর এবং সংলগ্ন দক্ষিণ আন্দামান সাগরের উপরে সৃষ্টি হওয়া নিম্নচাপটি ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হবে বলে জানাচ্ছে হাওয়া অফিস। এরপর এটি ৪ ডিসেম্বর সোমবার দক্ষিণ অন্ধ্রপ্রদেশ এবং সংলগ্ন উত্তর তামিলনাড়ু উপকূলে পৌঁছবে। আবহাওয়াবিদদের অনুমান, অন্ধ্রপ্রদেশের নেল্লোর এবং মছলিপত্তনমের মাঝামাঝি ঘূর্ণিঝড় মিগজাউম (Michaung) ল্যান্ডফল করবে।

পরিস্থিতির গুরুত্ব বিচার করে তামিলনাড়ু সরকার পুদুচেরি, কারাইকাল এবং ইয়ানাম অঞ্চলের স্কুল, কজেলগুলোতে ৪ ডিসেম্বর ছুটি ঘোষণা করেছে। এছাড়া তামিলনাড়ুতে ৩-৬ ডিসেম্বর আন্তঃরাজ্য দূরপাল্লার ট্রেন সহ মোট ১১৮টি ট্রেন বাতিল করেছে দক্ষিণ রেলওয়ে। ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে ঝড়বৃষ্টির ফলে মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে যেতে নিষেধ করা হয়েছে। অন্ধ্রপ্রদেশ, তামিলনাড়ু এবং ওড়িশার মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে নামতে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে।

ঘূর্ণিঝড় 'মিগজাউম'এর (Michaung) প্রভাবে পশ্চিমবঙ্গের একাধিক জেলায় বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। আবহাওয়া অফিস সূত্রে খবর, মঙ্গলবার থেকে বৃহস্পতিবারের মধ্যে দুই ২৪ পরগণা, দুই মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রাম, বাঁকুড়া, পুরুলিয়া এবং কলকাতা সংলগ্ন এলাকায় বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।