Maharashtra Assembly Elections 2019 Results: আদিত্য ঠাকরে মুখ্যমন্ত্রী হোক, বিজেপির কাছে দাবি জানাল শিবসেনা
চলছে ভোট গণনা (Photo: ANI)

মুম্বই, ২৪ অক্টোবর: যত বেলা গড়াচ্ছে ততই জমে উঠছে মহারাষ্ট্র বিধানসভা নির্বাচনের (Maharashtra Assembly Elections ) ভোট গণনা। বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা থেকে শুরু হয় ভোট গণনা। ফলাফলের যা ট্রেন্ড তাতে মহারাষ্টে ফের সরকার গড়ছে বিজেপি(BJP)-শিবসেনা (Shiv Sena) জোট। যদিও বিজেপির পক্ষে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা পাওয়া সম্ভব নয় বলে মনে হচ্ছে। আর তা লক্ষ্য করেই মুখ্যমন্ত্রী পদের দাবি জানিয়েছে শিবসেনা। এখনও পর্যন্ত ১০১টি আসনে এগিয়ে আছে বিজেপি। শিবসেনা এগিয়ে রয়েছে ৬৩টি আসনে। মহারাষ্ট্র বিধানসভার মোট আসন ২৮৮। কংগ্রেস এগিয়ে রয়েছে ৩৯টি আসনে। অন্যদিকে এনসিপি এগিয়ে ৫০টি আসনে। শিবসেনা সাংসদ সঞ্জয় রাউত ভারালি বিধানসভা কেন্দ্র থেকে ভোটে লড়া আদিত্য ঠাকরের (Aaditya Thackeray) জন্য মুখ্যমন্ত্রী পদের দাবি জানিয়েছেন।

আদিত্য হলেন ঠাকরে পরিবারের প্রথম সদস্য যিনি ১৯৬৬ সালে শিবসেনা প্রতিষ্ঠার পর ভোটে লড়ছেন। ১৯৬৬ সালে বাল ঠাকরে শিবসেনা প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। ফলাফলের ধরন অনুযায়ী, ২৮৮ আসনের মধ্যে ১০১ আসনে বিজেপি এগিয়ে। এর অর্থ তারা একা সরকার গঠন করতে পারবে না। তাদের শিবসেনার সমর্থন প্রয়োজন হবে। ২০১৪ সালের মহারাষ্ট্র বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি একক বৃহত্তম দল হিসাবে ১২২ আসনে জয়লাভ করেছিল। একা লড়ে শিবসেনা পেয়েছিল ৬৩টি আসন। কংগ্রেস এবং এনসিপি যথাক্রমে ৪২ ও ৪১ আসন পেয়েছিল।

এদিকে জানা যাচ্ছে, বারামতি আসনে বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন এনসিপি নেতা অজিত পাওয়ার। তিনি ১ লাখ ২৬ হাজার ৪০২টি ভোট পেয়েছেন। বাকি প্রার্থীদের জামানত জব্দ হয়েছে। ঘাটকোপার পূর্ব আসনে জিতেছেন বিজেপির পরাগ সিং। এনিয়ে তিনবার এই আসনে জয় পেল বিজেপি। ভোকার বিধানসভা আসনে জয় পেয়েছেন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী অশোক চহ্বন।