Terrorists Open Fire at CRPF Personnel in Pulwama: পুলওয়ামায় স্কুলের সামনে লাগাতার গুলি চালিয়ে উধাও জঙ্গির দল, তদন্তে নামল সেনাবাহিনী
কাশ্মীর পুলিশ প্রতীকী ছবি (Photo Credit: IANS)

শ্রীনগর, ২৯ অক্টোবর: ৩৭০-এর গেরো কাটিয়ে এখনও স্বাভাবিক হতে পারেনি জম্মু ও কাশ্মীর। তবে পোস্টপেড কানেকশন ফিরেছে। স্কুল কলেজ বাজার হাট স্বাভাবিক হচ্ছে। এদিন ফের অঘটন, পুলওয়ামার দ্রাবগামে একটি স্কুলের সামনে আচমকাই চলল গুলি। সেখানেই টহল দিচ্ছিল সিআরপিএফ জওয়ানদের একটি দল। মঙ্গলবার সেখানেই চলল ছয় থেকে সাত রাউন্ড গুলি। তবে কোন সংগঠন এই আচমকা গুলি চালিয়ে উধাও হয়ে গেল, তা জানতে শুরু হয়েছে তদন্ত। এদিকে ৩৭০ ধারা বাতিলের পর কাশ্মীরের পরিস্থিতি দেখতে মঙ্গলবারই সেখানে গিয়েছেন ইউরোপের ২৮ জন সাংসদ। এ দিন পুলওয়ামার স্কুলে ভয়ের আবহেই শুরু হয়েছিল পরীক্ষা। নিরাপত্তার প্রহরা ছিল কড়া। কিন্তু জঙ্গিরা ফের প্রমাণ করে দিল তাদের সক্রিয়তা।

জানা গিয়েছে, দ্রাবগামের (Drabgam) ওই স্কুলটি মূলত পরীক্ষাকেন্দ্র হিসেবে ব্যবহার করা হয়। উপত্যকার এই এলাকায় জঙ্গিদের বাড়বাড়ন্ত থাকায় স্কুলটিতে সিআরপিএফের (CRPF) একটি বাঙ্কারও তৈরি করা হয়েছিল। মঙ্গলবার দুপুরে সেখানে ক্লাস টেনের একটি পরীক্ষা চলছিল। তাই স্থানীয় পুলিশের সঙ্গে পাহারা দিচ্ছিলেন সিআরপিএফ জওয়ানরাও। আচমকা সেখানে থাকা বাঙ্কার লক্ষ্য করা ছ-সাত রাউন্ড গুলি ছোঁড়ে অজ্ঞাত পরিচয়ের জঙ্গিরা। পাল্টা জবাব দেন পুলিশকর্মী এবং জওয়ানরাও। তবে আচমকাই ঘটনাস্থল থেকে জঙ্গিরা উধাও হয়ে যেতেই তাদের খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে সেনা। এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। আরও পড়ুন-Asaduddin Owaisi On EU Delegation: চমৎকার! ইসলামোফোবিয়ায় আক্রান্ত নাৎসি প্রেমীরা গেল মুসলিম অধ্যুষিত কাশ্মীর উপত্যকায়, কী বললেন আসাদউদ্দিন ওয়েসি

গত ৫ আগস্ট উপত্যকার বিশেষ স্টেটাস খর্ব করে ৩৭০ ধারা (Article 370) ও ৩৫-এর এ ধারা বাতিল করে দেয় কেন্দ্র। তারপর থেকে জঙ্গি হানার আশঙ্কায় দীর্ঘদিন ধরে কমিউনিকেশন ব্ল্যাকআউটে কাটিয়েছে গোটা উপত্যকা। যাতে কোনও ক্ষোভ না ছড়ায়, সে জন্য রাজনৈতিক নেতাদের বন্দি করা হয়। পর্যটকদের উপরেও নিষেধাজ্ঞা চাপানো হয়। শেষে অক্টোবরের মাঝামাঝি থেকে খানিক স্বাভাবিক হয় পরিস্থিতি। তবে সেই সঙ্গেই বাড়ে অশান্তিও। সোপিয়ানে খুন হয়ে যান ভিন রাজ্য থেকে আসা তিন জন ট্রাক চালক। সোমবার দুপুরে ফের খবর পাওয়া যায়, সোপোরে জঙ্গিদের গ্রেনেড হানায় আহত হয়েছেন ১৫ জন। সন্ধ্যায় শোনা যায় বিজবেহরায় ফের এক ট্রাক ড্রাইভারকে খুন করেছে জঙ্গিরা। সংবিধানের ৩৭০ ধারা বিলোপ করার পরে এই নিয়ে চারজন নিরীহ মানুষ জঙ্গিদের হাতে মারা পড়লেন।