Jammu and Kashmir Encounter: জঙ্গিদের সঙ্গে সংঘর্ষে কাশ্মীরের রামবানে শহিদ ১ সেনা, জখম কাশ্মীর পুলিশের ২ জওয়ান; নিকেশ ৩ জঙ্গি
চলছে গুলির লড়াই (Photo: ANI)

শ্রীনগর, ২৮ সেপ্টেম্বর: Jammu and Kashmir Encounter-কাশ্মীরের (Jammu and Kashmir ) রামবানের বাটোটেয় জঙ্গিদের সঙ্গে সংঘর্ষে শহিদ হলেন এক সেনা(Army personel)। সংঘর্ষে জখম হয়েছেন জম্মু ও কাশ্মীর পুলিশের ২ জওয়ান। নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে নিকেশ হয়েছে নিকেশ ৩ জঙ্গিও। এক সাধারণ নাগরিককে বন্দি করেছিল জঙ্গিরা। তাঁকে উদ্ধার করা হয়েছে। জানিয়েছেন জম্মু ও কাশ্মীর পুলিশের IG মুকেশ সিং। তিনি আরও জানান যে, অভিযান শেষ হয়েছে। শনিবার সকাল থেকেই কাশ্মীরে (Jammu And Kashmir) চলছে নিরাপত্তা বাহিনী-জঙ্গি গুলির লড়াই (Encounter Between Security Forces And Militants)। মোট দুটি সংঘর্ষ ও একটি গ্রেনেড হামলা হয়।

প্রথম ঘটনাট ঘটে রামবান (Ramban district) জেলার বাটোটে (Batote) এলাকায়। সকালে ২২৪ নম্বর জাতীয় সড়কে তিনজন সন্দেহভাজন জঙ্গি একটি প্রাইভেট গাড়ি দাঁড় করানোর চেষ্টা করে। যদিও গাড়ির চালক থামেননি। সন্দেহ হওয়াতে গাড়ির চালক সেনাবাহিনীর কুইক রেসপন্স টিমকে খবর দেন। খবর পাওয়া মাত্রই যৌথবাহিনী নিয়ে গোটা এলাকা ঘিরে ফেলে। সন্দেহভাজন জঙ্গিদের ধরতে তল্লাশি অভিযান চালানো হয়। জওয়ানের উপস্থিতি টের পেয়েই গুলি চালাতে শুরু করে জঙ্গিরা। এরপরই দুপক্ষের শুরু হয় গুলিবর্ষণ। আরও পড়ুন: কে এই বিদিশা মৈত্র? যার স্পষ্ট, যুক্তিযুক্ত ও চাঁচাছোলা জবাবে কুপোকাত ইমরান খান

CRPF-র তরফে পরে জানানো হয় জঙ্গিরা একটি বাড়ি থেকে গুলি চালাচ্ছে। বাড়ির কয়েকজনকে বন্দি করে তারা। এক বৃদ্ধকে বাদ দিয়ে বাকিদের উদ্ধার করে নিরাপত্তাবাহিনী। পরে গুলির লড়াইয়ে ৩ জঙ্গিকে নিকেশ করা হয়। বন্দি থাকা ব্যক্তিকে অক্ষত উদ্ধার করা হয়। এদিকে অভিযান শেষ হতেই আনন্দ করতে শুরু করেন নিরাপত্তা বাহিনীর জওয়ানরা।

এদিক সেনার নর্দান কমান্ডের তরফে জানানো হয়েছে, সকালে আরও একটি সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে গান্দেরবালে এক জঙ্গি নিকেশ হয়েছে। যদিও অসমর্থত সূত্রে খবর তিনজন জঙ্গির মৃত্যু হয়েছে। তাদের কাছ থেকে আগ্নেয়াস্ত্র সহ অন্য জিনিসপত্র উদ্ধার করা হয়েছে। তৃতীয় ঘটনাটি ঘটেছে শ্রীনগর শহরে। সাফাকাদল এলাকায় CRPF-র কনভয় লক্ষ্য করে গ্রেনেড ছোড়ে জঙ্গিরা। যদিও তাতে কেউ হতাহত হয়নি। সূত্রের খবর এলাকায় নিষেধাজ্ঞা জারি থাকায় রাস্তায় খুব কম লোকজন ছিল।