Indian Navy: ভারতীয় নৌবাহিনীর ইতিহাসে নয়া অধ্যায়ের সূচনা, যুদ্ধজাহাজে পোস্টিং  হলেন ২ মহিলা অফিসার
নৌসেনা অফিসার কুমুদিনী ত্যাগী এবং রীতি সিং (Photo Credits: Twitter)

নতুন দিল্লি, ২১ সেপ্টেম্বর: ভারতীয় নৌসেনার (Indian Navy) ইতিহাসে নতুন রেকর্ড। এই প্রথম যুদ্ধজাহাজে পোস্টিং পেলেন দুই মহিলা অফিসার।  সংবাদ মাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমসের খবর অনুযায়ী এঁরা হলেন সাব-লেফটেন্যান্ট কুমুদিনী ত্যাগী এবং সাব-লেফটেন্যান্ট রীতি সিং। নেভি ওয়ারশিপের ক্রিউ হিসেবে যোগদান করবেন তাঁরা।  নৌবাহিনীর মাল্টি-রোল হেলিকপ্টার অপারেট করার জন্য প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে কুমুদিনী ত্যাগী এবং রীতি সিংকে। আশা করা হচ্ছে খুব শিগগিরই এই দুই তরুণী অফিসারকে নৌবাহিনীর এমএইচ-৬০ আর হেলিকপ্টার ওড়াতে দেখা যাবে। গোটা বিশ্বের সবথেকে উন্নত হেলিকপ্টারগুলির মধ্যে প্রথম সারিতে রয়েছে এমএইচ-৬০ আর। আকাশ থেকে এরা জলে লুকিয়ে থাকা শত্র‌ুর যুদ্ধজাহাজ এবং সাবমেরিন চিহ্নিত করে মিসাইল ও টর্পেডো ছুঁড়ে তা ধ্বংস করতে সক্ষম।

জানা গিয়েছে, ২০১৮-তে ২.৬ বিলিয়ন ডলারে এই হেলিকপ্টার ক্রয়ের চুক্তি স্বাক্ষর করেন তত্‍কালীন প্রতিরক্ষা মন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ। আজ থেকে ভারতীয় নৌবাহিনীতে নারীর সমানাধিকার ও ক্ষমতায়নে খুলে গেল নতুন দিগন্ত। নৌবাহিনীর হেলিকপ্টারে পাইলট হিসেবে কাজ করবেন দুই সাব লেফটেন্যান্ট কুমুদিনী ত্যাগী, রীতি সিংহ। নৌবাহিনীতে মহিলাদের নিয়োগ করা হলেও এত দিন পর্যন্ত তাঁদের যুদ্ধজাহাজে মোতায়েন করা হত না। কোয়ার্টারগুলিতে নিরাপত্তার অভাব, মহিলাদের ব্যবহারের মতো শৌচাগার না থাকা, দীর্ঘদিন ধরে জাহাজে থাকার মতো নানা কারণে এমনটাই কার্যত প্রথা হয়ে দাঁড়িয়েছিল। সেই প্রথা ভেঙে সোমবার কোচিতে আইএনএস গরুড় যুদ্ধজাহাজে একটি অনুষ্ঠানের মাধ্যমে তাঁদের এই নিয়োগের প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়। কুমুদিনী ও রীতিকে অভিনন্দন জানিয়ে অনুষ্ঠানে রিয়ার অ্যাডমিরাল অ্যান্টনি জর্জ বলেন, ‘‘এটা ঐতিহাসিক মুহূর্ত। এই প্রথম মহিলাদের হেলিকপ্টার অপারেশনের প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে যার মাধ্যেমে যুদ্ধজাহাজে মহিলা অফিসারদের মোতায়েনের সূচনা হল।’’ আরও পড়ুন-Indian Citizenship: গত ৩ বছরে ভারতের নাগরিকত্ব পেয়েছেন ২,১২০ জন পাকিস্তানি, ১৮৮ জন আফগানিস্তানি ও ৯৯ জন বাংলাদেশি

নৌবাহিনীতে যোগ দেওয়ার পরে ওই হেলিকপ্টার ওড়াবেন সাব লেফটেন্যান্ট কুমুদিনী ত্যাগী ও রীতি সিংহ। প্রতিপক্ষ বা শত্রুপক্ষের জাহাজ ও সাবমেরিনের অবস্থান নির্ধারণ করা এবং ধ্বংস করার কাজে পারদর্শী এই হেলিকপ্টারগুলি। দুই মহিলা সেনা অফিসার মাল্টি রোল হেলিকপ্টার অপারেশনের জন্য প্রয়োজনীয় সেন্সর, সোলার কনসোল এবং ইন্টেলিজেন্স, সার্ভিল্যান্স ও সমন্বয়ের কাজ কাজ করবেন।