Andhra Pradesh Shocker: করোনা হওয়ার ভয়ে একই পরিবারের চারজনের আত্মহত্যা

হায়দরাবাদ, ২৩ জুন: অন্ধ্রপ্রদেশের (Andhra Pradesh) ভাদ্দেগিরি-র কুরনুলের একই পরিবারের চারজন বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করলেন। ছেলে-মেয়েকে-স্ত্রীকে নিয়ে আত্মহত্যা করলেন পরিবারের কর্তা। চারজনে হাতে হাত ধরে বিষ খেয়ে মারা যান বলে স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকশ। আরও পড়ুন:  গঙ্গার খাল থেকে উদ্ধার গাড়িতে মিলল মৃতদেহ, ৫৫ কিমি দূরে খালে পড়া আরও একটি গাড়ি থেকেদেহ উদ্ধার

করোনার কারণে তাঁদের ঘনিষ্ঠ আত্মীয়, বন্ধুরা মৃত্যুতে মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছিলেন তারা। আশঙ্কা করছিলেন তাদেরও কোভিড হতে পারে। আর তাই তারা আত্মহত্যা করলেন। সুইসাইড নোটে (Suicide Note) এমন কথাই লেখেন আত্মহত্যা করা পরিবারের এক সদস্য।

বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করা ওই পরিবারের সদস্যদের নাম প্রতাপ (Pratap) (৪২), তাঁ স্ত্রী হেমলতা (Hemlata) (৩৬), ছেলে জয়ন্ত (Jayanta) (১৭) ও মেয়ে হর্ষিতা (Harshita) (১৪)। তাদের প্রতিবেশী কোনও এক কারণে ডাকতে গিয়ে তাদের কিছুতেই পাননি। এরপর তারা সন্দেহ হলে তিনি আরও অনেককে ডেকে আনেন। এরপর তারা সবাই পুলিশকে খবর দজেন। পুলিশ ঘরের দরজা ভেঙে ঢুকে দেখে পরিবারের চারজন মাটিতে মরে পড়ে আছেন। প্রতাপ টিভি লসারানোর কাজ করেন। তার জয়ন্ত হাই স্কুলে পড়ত এবং মেয়ে সপ্তম শ্রেণীর ছাত্রী।