Poonam Pandey: বিয়ের এক সপ্তাহের মধ্যেই স্বামীর মারধর, শারীরিক নির্যাতন নিয়ে মুখ খুললেন পুনম পান্ডে
Poonam Pandey (Photo Credit: Instagram)

মুম্বই, ২৫ ফেব্রুয়ারি:  বিয়ের এক সপ্তাহের মধ্যে স্বামীর হাতে নির্যাতিত হতে হয় পুনম পান্ডেকে (Poonam Pandey)। বিয়ের পর গোয়ায় (Goa) মধুচন্দ্রিমায় গিয়ে শ্যাম বম্বে তাঁকে মারধর করেন বলে অভিযোগ দায়ের করেন পুনম পান্ডে। অভিনেত্রীর অভিযোগ পেয়ে গোয়া পুলিশের তরফে গ্রেফতার করা হয় শ্যাম বম্বেকে। বিষয়টি নিয়ে জোর শোরগোল শুরু হয়ে যায়। এরপর শ্যাম বম্বে (Sam Bombay) এবং পুনম পান্ডে একসঙ্গে দাবি করেন, তাঁরা নিজেদের মধ্যে বিরোধ মিয়টিয়ে নিয়েছেন এবং একসঙ্গে থাকছেন। শ্যাম বম্বের সঙ্গে থাকাকালীন ফের পুনমকে মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। শারীরিক নির্যাতনের জেরে এরপর পুনম পান্ডেকে মুম্বইয়ের একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ওই ঘটনার পর থেকেই পুনম আর শ্যামের কাছে ফেরেননি বলে খবর।

সম্প্রতি এক সংবাদমাধ্যমের সাক্ষাৎকারে পুনম পান্ডে বলেন, বিয়ের পর শারীরিক নির্যাতন কোনও ছোট ঘটনা নয়। সামান্য বিষয়ও নয়। কোনও মেয়েই এই ধরণের অত্যাচার মেনে নিতে পারে না বলে মন্তব্য করেন পুনম পান্ডে। বিয়ের পর যা হয়েছে, তা অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক। তবে বর্তমানে তিনি একাই থাকেন। শ্যাম বম্বের সঙ্গে কোনও সম্পর্ক নেই। তিনি সঙ্গী খুঁজছেন বলেও জানান পুনম।

আরও পড়ুন:  Farhan Akhtar: বাবার বিয়েতে খুশিতে ডগমগ ফারহান আখতারের ২ মেয়ে

২০১১ সালে প্রথম ভাইরাল হয় পুনম পান্ডের একটি বিবৃতি। ওই সময় পুনম পান্ডে দাবি করেন, ভারত বিশ্বকাপ জিতলে তিনি নগ্ন হবেন। ভারত বিশ্বকাপ জিতলেও, বিসিসিআইয়ের তরফে পুনমের কীর্তি রোধ করা হয়। তাঁকে নগ্ন হতে দেওয়া হয়নি বিসিসিআইয়ের তরফে। এরপর নাশা-য় অভিনয় করে বলিউডে পরিচিতি পান পুনম পান্ডে।