ভারতের বাইক বাজারে তাক লাগাতে হাজির ডুকাটি, ডিয়াভেলের নতুন সিরিজ
ডুকাটি ডিয়াভেল(Photo Credit: Twitter)

বাইক প্রসঙ্গে তুখোড় আলোচনা চললে ডিয়াভেলের (Ducati Diavel) নাম আসতে বাধ্য। ডিয়াভেল সিরিজের বাইকগুলি বাইকারদের মনের মণিকোঠায় থাকে। প্রত্যেক বাইকারই স্বপ্ন দেখেন কোনও একসময় তিনি ডিয়াভেলে চড়ে প্রকৃতিকে জয় করতে বেরিয়েছেন। ফের বাইকের বাজারে ঝড় তুলতে ভারতে আসছে ডিয়াভেল ১২৬০ (Ducati Diavel 1260) ও ডিয়াভেল ১২৬০ এস। বাইক প্রস্তুত কারক সংস্থা ডুকাটির খ্যাতি এই ডিয়াভেলের দৌলতে। সেই খ্যাতি ম্লান করতে দিতে নারাজ সংস্থাটি। তাইতো নতুন সিরিজের বাইক আসার আগে গ্রাহকদের পছন্দের কথা মাথায় রেখে কম গবেষণা হয়নি। এর জেরে শুধু স্টাইলিশ বাইক-ই নয়, ডুকাটির ভাগ্যে এসেছে পুরস্কারও। আরও পড়ুন-নতুন বছরেই ধামাকা, ই-বাইক আনছে হার্লে ডেভিডসন

একেবারে  ‘বেস্ট অফ দা বেস্ট’ পুরস্কার। অভিনব ডিজাইনের দৌলতেই ডুকাটি  ২০১৯ সালে রেড ডট অ্যাওয়ার্ড পেয়েছে। প্রস্তুত কারক সংস্থার তরফে জানা গিয়েছে, নতুন ডুকাটি ডিয়াভেল ১২৬০-এ থাকছে আরও উন্নতমানের ডিভিটি ১২৬২ ইঞ্জিন। ১৫৭ বিএইচপি এবং ৯২৫০ আরপিএম সম্বনিত এই ইঞ্জিন সর্বাধিক ৭৫০০ আরপিএম টর্ক উৎপন্ন করতে সক্ষম। বাইকগুলিতে থাকছে দিনের বেলার জন্য উপযুক্ত এলইডি, এলইডি ইনডিকেটর, ওহলিন্স সাস্পেশন এবং এম৫০ মনোবলিক ব্রেক। ট্যুরিং মোড, আরবান রাইডিং মোড এবং স্পোর্টস তিন ধরনের রাইডিং মোডে মিলবে এটি। এছাড়া বাইকগুলিতে থাকছে ট্রাকশন কন্ট্রোল, সেলফ কন্ট্রোলিং ইনডিকেটর এবং উইলি কন্ট্রোল সিস্টেম। ডিয়াভেল ১২৬০ বাইকটি মিলবে ১৭.৭ লক্ষ এবং ডিয়াভেল ১২৬০ এস মিলবে ১৯.২৫ লক্ষ টাকায়।

এই প্রসঙ্গে ডুকাটি ইন্ডিয়ার ম্যানেজিং ডিরেক্টর সার্জি ক্যানোভাসের দাবি, “বাইকটি লঞ্চ হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই এর জনপ্রিয়তা আকাশ ছোঁয়া। অল্পবয়সিদের মধ্যে নিজের লুক এবং শক্তিশালী ইঞ্জিনের জন্য এক বিশেষ জায়গা দখল করে এই সুপারবাইকগুলি। বাইকারদের পছন্দের কথা মাথায় রেখেই এগুলি বানানো হয়েছে। এর নতুন ভারসানগুলি আরও উন্নত।আমি নিশ্চিত, জনপ্রিয়তার বিচারে আগের বাইকগুলিকেও পিছনে ফেলে দেবে নতুন দুই ডিয়াভেল।’’