Dilip Ghosh: 'কমিউনিস্টরা এমন মার আরও খাবে', জেএনইউর হামলাকারীদের সমর্থন করে পাল্টা হুমকি দিলীপ ঘোষের
দিলীপ ঘোষ (Photo Credit: ANI)

কলকাতা, ৬ জানুয়ারি: এবিভিপি-র (ABVP) সদস্যদের তাণ্ডবে গতকাল অর্থাৎ রবিবার জেএনইউ ক্যাম্পাসের মধ্যেই আক্রান্ত হন এসএফআই নেত্রী ঐশী ঘোষ। এই ঘটনায় দেশজুড়ে ক্ষোভ ও সমালোচনার মুখে রাজ্যে পথে নামছে তৃণমূল কংগ্রেস। এদিকে এই আক্রমণের ঘটনাকে পূর্ণ সমর্থন জানালেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এই প্রসঙ্গে রবিবার রাতে কোনও মন্তব্যই করতে চাননি দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh)। কিন্তু সোমবার সকালে তিনি রীতিমতো বিস্ফোরক। যাদবপুরে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে কয়েক মাসে আগে মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়র উপরে হওয়া হামলার ঘটনাকে মনে করিয়ে দিয়ে তিনি বলেন, দেশের বিভিন্ন রাজ্যে গেরুয়া শিবিরের কেউ মার খেলে এমন ক্ষোভ দেখা যায় না কিন্তু কমিউনিস্টরা মার খেলেই যত গোলমাল হয়।

গোটা দেশে যখন এবিভিপির এহেন তাণ্ডবের নিন্দা করা হচ্ছে, তখন দিলীপ ঘোষ বলেন, “যাদবপুরে যখন মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়কে হেনস্থা করা হয় তখন কাউকে মুখ খুলতে দেখা যায়নি। মুখ্যমন্ত্রী তখন টুইট করেননি। বছরের পর বছর ধরে এসএফআই শিক্ষাঙ্গনে সন্ত্রাস চালিয়েছে। সবার মুখ তখন বন্ধ ছিল। আর এখন যেই কমিউনিস্টরা মার খেয়েছে তখনই হইচই শুরু হয়ে গিয়েছে। আসলে কমিউনিস্টদের মার খাওয়ার সময় এসে গিয়েছে। এমন মার আরও পড়বে।” আরও পড়ুন-Supreme Court: মাদ্রাসা শিক্ষক নিয়োগে রাজ্যের আইন বহাল রাখার সিদ্ধান্ত নিল সুপ্রিম কোর্ট

এবিভিপির এই তাণ্ডব চালানোর ঘটনাকে তিনি আদৌ সমর্থন করছেন কি না সরাসরি না বললেও অস্বীকার করেননি। নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে এবং জামিয়া মিলিয়ায় প্রহৃত পড়ুয়াদের সমর্থনে বেশ কয়েক দিন ধরেই বিক্ষোভ আন্দোলন চলছে জেএনইউ-তে। রাজনৈতিক মহলের একাংশের বক্তব্য, এই অবস্থায় গেরুয়া বাহিনীর নজরে রয়েছে এই বিশ্ববিদ্যালয়। আর তার থেকেই এই হামলা। জেএনইউ-র ছাত্র সংসদের তরফে জানানো হয়েছে, মুখঢাকা দুষ্কৃতীরা সকলেই এবিভিপির সদস্য। সবরমতী গার্লস হস্টেলে ঢুকে রীতিমত তাণ্ডব চালানো হয়েছে, ভাঙচুর করা হয়েছে হস্টেলের সম্পত্তি। ঐশীর পাশাপাশি গুরুতর ভাবে আহত হয়েছেন অধ্যাপিকা সুচরিতা সেন। আহত হয়েছেন সাধারণ সম্পাদক সতীশ চন্দ্র যাদবও।