Danish Kaneria: 'সরকার বা বোর্ডের কাছ থেকে আমি কোনও সাহায্য পাইনি', নতুন অভিযোগ আনলেন দানিশ কানেরিয়া
দানেশ কানেরিয়া (Photo Credits: Getty Images)

করাচি, ২৮ ডিসেম্বর: পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড ও পাকিস্তান সরকারের বিরুদ্ধে নতুন করে অভিযোগ আনলেন দানিশ কানেরিয়া (Danish Kaneria)। তাঁর দাবি, ক্রিকেট থেকে নির্বাসিত হওয়ার পর তাঁকে কোনও সহায়তা দেওয়া হয়নি। টুইটারে কানেরিয়া লিখেছেন, "এটা সত্যি যে নিষেধাজ্ঞার পরে এবং স্পট ফিক্সিং নিয়ে স্বীকারোক্তির পরে পাকিস্তান সরকার বা বোর্ডের কাছ থেকে আমি কোনও সমর্থন পাইনি। অন্যদিকে একই পরিস্থিতিতে অন্য খেলোয়াড়রা পিসিবি (PCB)-র সমর্থন নিয়ে দেশের হয়ে খেলেন এবং সম্মানিত হন।"

৩৯ বছরের কানেরিয়া অবশ্য আরও বলেন যে, মুসলিম অধ্যুষিত দেশে হিন্দু হওয়ার কারণে পাকিস্তানের নাগরিকরা তাঁর বিরুদ্ধে কখনও কোনও বৈষম্য দেখায়নি। তিনি বলেন, "ধর্মের ভিত্তিতে পাকিস্তানের জনগণ কখনই আমার সঙ্গে বৈষম্য করেনি। আমি গর্বিত যে আমি পাকিস্তানের হয়ে সততার সঙ্গে খেলেছি। এখন আমার ভাগ্য নির্ধারণ ইমরান খান (Imran Khan) ও পিসিবি-র হাতে।" আরও পড়ুন:  Khulna Tigers vs Sylhet Thunder BPL 2019-20 Live Streaming: এক ক্লিকে জেনে নিন কখন, কীভাবে দেখবেন বাংলাদেশ প্রেমিয়র লীগের সরাসরি সম্প্রচার

এর আগে বৃহস্পতিবার পাকিস্তানের প্রাক্তন পেসার শোয়েব আখতার (Shoaib Akhtar) অভিযোগ করেছিলেন যে হিন্দু ধর্মের বিশ্বাসের কারণে কানেরিয়াকে পাকিস্তান দলে হেনস্থার শিকার হতে হয়েছে। সতীর্থরা তাঁর সঙ্গে খাবার খেত না। শোয়েব বলেন, "দেশের জন্য় ভালো ক্রিকেট খেললেও কানেরিয়াকে যোগ্য সম্মান দেওয়া হয়নি। অনেকেই চাননি কানেরিয়াকে দলে নেওয়া হোক। কয়েকজন খেলোয়াড় ছিল যারা ওকে টার্গেট করেছিল। যদিও তাঁকে ধর্ম পরিবর্তন করার জন্য কখনও চাপ দেওয়া হয়নি।"