Virat Kohli: সমকামী যুগলদের প্রবেশে নিষেধ, বিরাট কোহলির রেস্তোরাঁর বিরুদ্ধে ক্ষোভ নেট পাড়ায়
Virat Kohli (Photo Credits: Getty)

পুণে, ১৬ নভেম্বর: এবার বিতর্কে জড়াল বিরাট কোহলির (Virat Kohli) রেস্তোরাঁ। পুণেতে ওয়ান ৮ কমিউন নামে কোহলির যে রেস্তোরাঁ রয়েছে, সেখান প্রবেশ করতে পারবেন না সমকামী ।যুগলরা। এমনই একটি খবরে শোরগোল ছড়ায়। বিরাটের ওয়ান ৮ কমিউন নামে ওই রেস্তোরাঁরা বিরুদ্ধে এমনই অভিযোগ করেন 'ইয়েস উই এক্সজিস্ট ইন্ডিয়া' নামে একটি সংগঠন। এলজিবিটি সম্প্রদায়ের মানুষকে নিয়ে কাজ করা ওই সংগঠন নিজেদের সোশ্যাল হ্যান্ডেলে বিরাটের রেস্তোরাঁর বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন। বিরাটের ছবি দিয়ে কোহলির রেস্তোরাঁর (Restaurant ) বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেয় সংশ্লিষ্ট সংগঠন।

বিরাট কোহলির রেস্তোরাঁর পুণে (Pune) ব্রাঞ্চের বিরুদ্ধে ওই ধরনের অভিযোগ পেয়ে প্রথমে সেখানকার কর্মীদের সঙ্গে ইয়েস উই এক্সজিস্টের তরফে কথা বলা হয়। সেখানকার কর্মীদের তরফে জানানো হয়, রেস্তোরাঁয় তাঁরা বিষমকামী যুগলদের প্রবেশের অনুমতি রয়েছে। মেয়েরাও প্রবেশ করতে পারেন সেখানে। তবে সমকামী পুরুষ এবং সমকামী যুগলদের প্রবেশের অনুমতি সেখানে নেই বলে দাবি করে ইয়েস উই এক্সজিস্ট নামের ওই সংগঠন। বিরাটের রেস্তোরাঁর বিরুদ্ধে ওই অভিযোগ ওঠার পর থেকেই তা নিয়ে জোর কদমে শোরগোল শুরু হয়ে যায়।

আরও পড়ুন:  Hardik Pandya: মিথ্যে খবর? '৫ কোটির' বহুমূল্য ঘড়ি উদ্ধার নিয়ে কী বললেন হার্দিক পান্ডিয়া

দেখুন ওই সংগঠন কী বলল...

 

View this post on Instagram

 

বিরাট কোহলির রেস্তোরাঁর বিরুদ্ধে ওই অভিযোগ প্রকাশ্যে আসতেই তা নিয়ে কটাক্ষ শুরু করেন নেটিজেনদের একাংশ। বিরাটের কাছ থেকে এই ধরনের ব্যবহার গ্রহণযোগ্য নয় বলে কেউ মন্তব্য করেন। কেউ আবার বলতে শুরু করেন, এলজিবিটি সম্প্রদায়ের মানুষ নিজেদের জন্য রেস্তোরাঁর ব্যবস্থা করে নেবেন। কেন অন্য কারও অপমান সহ্য করে তাঁদের কাছ যাবেন বলে মন্তব্য করা হয়। কোহলির রেস্তোরাঁ যা করেছে, তা দুঃখজনক বলেও মন্তব্য করেন কেউ কেউ। সবকিছু মিলিয়ে বিরাট কোহলির রেস্তোরাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠতেই নেট পাড়ায় তা নিয়ে শোরগোল শুরু হয়ে যায়।